কেন ইউক্রেনে মন্ত্রী-কর্মকর্তাদের পদত্যাগের হিড়িক?
আন্তর্জাতিক
কেন ইউক্রেনে মন্ত্রী-কর্মকর্তাদের পদত্যাগের হিড়িক?
চলমান দুর্নীতিবিরোধী অভিযানে ইউক্রেনের সরকারের মন্ত্রী-উপমন্ত্রী ও বিভিন্ন উচ্চপদে আসীন কর্মকর্তারা একের পর এক পদত্যাগ করছেন। রোববার দেশটির প্রেসিডেন্ট ভলোদিমির জেলেনস্কির শীর্ষ উপদেষ্টা কিরিলো তিমাশেঙ্কো তার পদ থেকে অব্যাহতি নিয়েছেন।

ছবি: সংগৃহীত
ছবি: সংগৃহীত
একই দিন পদত্যাগপত্র জমা দিয়েছেন দেশটির উপ প্রতিরক্ষামন্ত্রী ভাচিস্লাভ শোপালভ, উপ প্রসিকিউটর জেনারেল ওলেস্কিয়ে সিমোনেঙ্কোও। এছাড়া দুর্নীতির অভিযোগে অভিযুক্ত ইউক্রেনের প্রতিরক্ষামন্ত্রী ওলেস্কি রেজনিকভ এখনও পদত্যাগ করেননি, তবে তার বিরুদ্ধে ইতোমধ্যে তদন্ত শুরু ‍হয়েছে। মঙ্গলবার যে তিন জন পদত্যাগ করেছেন, তাদের মধ্যে সবার আগে ছিলেন কিরিল তিমাশেঙ্কো। ২০১৮ সালে জেলেনস্কির নির্বাচনী প্রচারণার সময় তার প্রধান সহকারী ছিলেন তিনি। নির্বাচনে জেলেনস্কির জয়ের পর ইউক্রেনের প্রেসিডেন্টের দপ্তরের উপপ্রধান হিসেবে নিয়োগ পান তিমাশেঙ্কা। পাশপাশি দেশটির বিভিন্ন প্রদেশের প্রাদেশিক ও স্থানীয় সরকার ব্যবস্থা দেখাশোনা করার দায়িত্বেও ছিলেন কিরিলো। 
বিবিসির এক প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, জেলেনস্কিরম এই শীর্ষ উপদেষ্টার বিরুদ্ধে বিধি বহির্ভূতভাবে দামি গাড়ি ব্যবহার ও সরকারি তহবিল তছরুপের অভিযোগ উঠেছিল। সরকারের দুর্নীতিগ্রস্ত কর্মকর্তাদের তালিকায় অন্তর্ভুক্ত করা হয়েছিল তার নামও। তারপরই মঙ্গলবার পদত্যাগপত্র জমা দেন তিনি। অন্যদিকে সেনাবাহিনীর জন্য অস্বাভাবিক মূল্যে খাদ্য কেনার অভিযোগ উঠেছে ইউক্রেনের প্রতিরক্ষা মন্ত্রণালয়ের বিরুদ্ধে। ইতোমধ্যে এ অভিযোগে উপ প্রতিরক্ষামন্ত্রী ভাচিস্লাভ শোপালভ এবং প্রতিরক্ষামন্ত্রী ওলেস্কি রেজনিকভের বিরুদ্ধে তদন্তও শুরু হয়েছে। সেই তদন্তের মধ্যেই মঙ্গলবার পদত্যাগপত্র জমা দিয়েছেন শোপালভ। 
আন্তর্জাতিকইউক্রেন
আরো পড়ুন