Link copied.
আফগানিস্তানে আমেরিকার 'মুনশট' শান্তি পরিকল্পনা কতটা কার্যকরী হবে?
writer
৩১ অনুসরণকারী
cover
আফগানিস্তানের মার্কিন শান্তি দূত জাল্মা খলিলজাদের কার্যালয় থেকে নতুন শান্তি চুক্তির একটি আপাতত খসড়া আফগানিস্তানের রাজধানী কাবুলে ঘোরাপাক করার পরে ফাঁস হয়েছে। বিবিসি হতে শক্তপোক্ত আটটি টাইপ করা পাতা, মার্কিন পররাষ্ট্রমন্ত্রী আন্তনি ব্লিংকেনের ফাঁস হওয়া তিন পৃষ্ঠার পত্রের সাথে পাওয়া গেছে, যা গত ৫ দিন আগে একেবারে রাজনৈতিক ঝড় তুলেছে।

মার্কিন রাষ্ট্রপতি জো বাইডেনের দল এটিকে একটি "মুনশট" বলে অভিহিত করছেন; তবে সমালোচকদের প্রশ্ন হচ্ছে এটি কোন "দ্রুত সমাধান" প্রক্রিয়া হবে কিনা; এবং মিলিয়ন মিলিয়ন আফগানের বিস্ময় এখানে যে এটি কি অন্তহীন যুদ্ধের অবসানের নীল নকশা নাকি পরিস্থিতিকে আরও খারাপ করে তুলার প্রক্রিয়ায় পরিণত হবে।

মিঃ ব্লিংকেন তার চিঠিতে লিখেছেন যে মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র আফগান সরকার এবং তালেবানদের "শর্ত সাপেক্ষে" বোঝাতে চায়নি, কেবল উভয় পক্ষকেই "জরুরি ভিত্তিতে" শান্তির দিকে এগিয়ে যেতে সক্ষম করেছে। 
আফগানিস্তান কখনোই কোনও কর্তৃত্ব ফলানো ও চাপিয়ে দেয়া শান্তি গ্রহণ করবে না। তারা আফগানিস্তানের জনগণের উপর নয়, কেবল আফগানিস্তানে তাদের নিজেদের সেনাবাহিনীর বিষয়ে সিদ্ধান্ত নিতে পারে।
সরলভাষী আফগান সহ-রাষ্ট্রপতি, আমরুল্লাহ সালেহ সরাসরি পাল্টা জবাবে বলেন
তালিবানের একজন মুখপাত্র, জবিউল্লাহ মুজাহিদ বিবিসিকে বলেন যে তারা চুক্তিটির খসড়া নিয়ে এখনও অধ্যয়ন করছেন। তবে তিনি জোর দিয়ে বলেন যে, তারা আশা করেন মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রে তাদের গত বছরের স্বাক্ষরিত চুক্তির শর্ত পূরণ হবে। অন্য কথায়, মার্কিন নেতৃত্বাধীন বাকি ১০,০০০ ন্যাটো বাহিনীকে ১ মে বা এর আগে সরিয়ে বা উঠিয়ে ফেলতে হবে। 
cover
মুনশট বিষয়টি কী
মুনশট হ'ল এক ধরণের কল্পনা যা বুদ্ধিদ্বীপ্ততায় নীল আকাশ এর সীমানা ছাড়িয়ে যায়। সবচেয়ে বড় সমস্যাগুলির সমাধানের সবচেয়ে বড় ধারণা হলো এই মুনশট কল্পনা। আফগানিস্তানে এটি জীবন ও মৃত্যুর চেয়ে কম কিছু নয়: দীর্ঘ দুই দশক পরে কীভাবে বৃহত্তর সহিংসতার দিকে ঝুঁকি না নিয়ে পশ্চাদপসরণ করা যায়।
এর পরিপ্রেক্ষিতে, এই ভয়াবহ যুদ্ধের ক্ষেত্রে "মর্যাদাপূর্ণ" আরেকটি নতুন শব্দগুচ্ছ: মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের একটি মর্যাদাপূর্ণ প্রস্থান; আফগানদের জন্য একটি মর্যাদাপূর্ণ শান্তি। 
আমাদের অধিকার সুরক্ষিত রাখতে একটি সম্মানজনক শান্তির জন্য এবং গণতান্ত্রিক শাসন ব্যবস্থাসহ মৌলিক মূল্যবোধের জন্য প্রত্যেকটি উপায় অনুসন্ধান করার দরকার আছে
আফগান সরকারের আলোচক নাদের নাদেরি
cover
প্রাক্তন আফগান রাষ্ট্রপতি হামিদ কারজাই কাবুলে বিবিসিকে বলেন, "এখানে বৃহত্তর তাৎপর্যপূর্ণতার বোধ রয়েছে"। মিঃ ব্লিংকেনের চিঠিতে প্রকাশ পায় "ঐক্য ও অন্তর্ভুক্তি" নিয়ে একসাথে চলা মিঃ কারজাইয়ের দৃঢ়তা। রাষ্ট্রপতি আশরাফ গনি কর্তৃক বন্ধ হওয়া অতীতের লড়াইয়ের যুদ্ধবাজদের আরও ভাল বা খারাপ পরিস্থিতি হওয়ার জন্য আবার আলোচনা টেবিলের সামনে শীর্ষে আনা হচ্ছে। কিছু লোক, যারা নিজের ভবিষ্যত এবং ভাগ্য পরিবর্তন করতে তালেবানের কাছে পৌঁছেছিলেন, তারা অনুধাবন করেছেন যে এক্ষেত্রে বিচ্ছিন্নতার ব্যয়টি বিশৃঙ্খলা ও পতনে পরিণত হতে পারে।

অগোছালো ধাঁচের ও রাজনীতির জোরে নীতিনির্ধারিত কাগজে নিমজ্জন করতে পছন্দ করা মিঃ গনিকেও আবার লড়াইয়ে নামানো হচ্ছে। রাজা জহির শাহের প্রাক্তন বাসভবন হারাম সরাইয়ে গত মাসে তাঁর বইয়ের সজ্জিত কার্যালয়ে রাষ্ট্রপতি গনি ইঙ্গিত দিয়েছিলেন যে এখন সঙ্কটের সময়, সামনে অনেক রুক্ষ সিদ্ধান্ত আর ত্যাগের মধ্য দিয়ে যেতে হবে। তবে জনাব খলিলজাদের ক্ষমতা ভাগাভাগিকারী সরকারের পূর্ববর্তী খসড়া সম্পর্কে জানতে চাইলে তিনি এটিকে "ডেস্কের পিছনে বসে কেউ স্বপ্ন দেখছে" বলে উড়িয়ে দেন। 
cover
তাহলে কি রাষ্ট্রপতি গনি, যারা এখনও জোর দিয়ে বলেন যে তিনি কেবল নির্বাচনের মাধ্যমে ক্ষমতা হস্তান্তর করবেন, তিনি কি এই রূপান্তর পরিকল্পনার স্বীকৃতি পাবেন? একজন আফগান রাজনীতিবিদ একটি আফগান প্রবাদ সংক্ষেপিত করেছিলেন: "আপনি যদি স্কুলে না যান তবে আপনাকে স্কুলে নিয়ে যাওয়া হবে।" অন্য কথায়, মিঃ গনির কোনও বিকল্প নেই।

এবং দেশের যুদ্ধবাজদের কী হবে - তারা কি শান্তির জন্য এত পুরনো বিদ্বষকে আলাদা করে দেবে? তা হতে পারে, তবে "রক্তে ভরা হৃদয়" এমন প্রবাদও আছে এবং সেইসাথে একটি সতর্কবাণী যে পুরানো কলহগুলি দীর্ঘকাল সুপ্ত থাকতে পারে না।
খসড়া কাগজে তিনটি ভাগে একটি নতুন ব্যবস্থা রয়েছে:
  • আফগানিস্তানের সংবিধান এবং আফগান রাষ্ট্রের ভবিষ্যতের জন্য নীতিমালা পরিচালনাকারী;
  • একটি ক্রান্তিকালীন সময়ে সরকার পরিচালনার জন্য সম্মত শর্তাদি এবং একটি "টেকসই এবং ন্যায়বিচার নিষ্পত্তি" এর একটি রোডম্যাপ;
  • এবং শেষ অবধি - এবং সবচেয়ে জরুরিভাবে আফগানদের জন্য - "স্থায়ী ও ব্যাপক যুদ্ধবিরতি এবং এর বাস্তবায়ন" এর শর্তাদি সম্মত হয়েছে।

চুক্তির খসড়ায় ফাঁকা জায়গা এবং অন্য বিকল্পগুলি পাশাপাশি রয়েছে। একটি অন্তর্বর্তীকালীন সরকারের সময়সীমার দৈর্ঘ্যকে "XX" হিসেবে চিহ্নিত করা হয়েছে। কার্যনির্বাহী প্রশাসনের জন্য দুটি সম্ভাবনা দেওয়া হয়েছে:
  • একটি সম্ভাবনা যেখানে একজন রাষ্ট্রপতি এবং সহ-রাষ্ট্রপতিগন নেতৃত্বে মানে বর্তমান ব্যবস্থার অনুরূপ;
  • অন্য একটি প্রস্তাবনায় প্রধানমন্ত্রী অন্তর্ভুক্ত রয়েছেন।

প্রক্রিয়াটি ত্বরান্বিত করার প্রয়াসে আমেরিকা সমস্ত বাঁধা নিরুপণ করে বাদ দিয়ে সমস্ত পক্ষের দিকে আহ্বান জানায়। জাতিসংঘ, এখন অবধি বহুলাংশে দ্বীপপুঞ্জে ছিল, প্রক্রিয়াটিকে বৃহত্তর আন্তর্জাতিক বৈধতা প্রদানের জন্য কেন্দ্র পর্যায়ে আলোচনা চলেছে, এবং আফগানিস্তানে দীর্ঘকালীন মধ্যস্থতাকারী প্রতিবেশীদের একই টেবিলে বসার পক্ষে সহজ করে তুলছে। মিঃ ব্লিংকেনের চিঠিতেও যুদ্ধবিরোধী দলকে একত্রিত করার জন্য তুরস্কে একটি উচ্চ পর্যায়ের বৈঠকের প্রস্তাব করা হয়েছিল। এবং আট পৃষ্ঠার খসড়া শান্তি চুক্তিতে প্রত্যেকের জন্য কিছু আছে।
  • "ইসলামিক দিকনির্দেশনা ও পরামর্শ" দেওয়ার জন্য তালেবানরা ইসলামী আইনশাস্ত্রের জন্য হাই কাউন্সিলের পরামর্শটি নোট করে - যদিও এটি "খাঁটি ইসলামী সরকার" ফিরিয়ে দেওয়ার বিষয়ে তালেবানরা যে বক্তব্য রেখেছিল তা থেকে খুব কমই মিল থাকতে পারে।
  • মহিলাদের জন্য প্রথম পৃষ্ঠায় আছে যে "ভবিষ্যতের সংবিধানটি নারীর অধিকার সংরক্ষণের নিশ্চয়তা দেবে"। যদি কেউ জানেন যে একাকী শব্দগুলি কখনই পর্যাপ্ত হয় না, তবে রক্ষণশীল তালিবানরা ক্ষমতায় থাকুক বা না থাকুক, জীবন বদলে গেছে এমন নারী ও মেয়েরা প্রচুর পরিমাণে পরিবেষ্টিত হয়েই রয়েছেন।

এবং লক্ষ লক্ষ আফগানের হৃদয়কে শোকে কাতর করে, তারা এই প্রবন্ধটিকে "ক্রান্তিকালীন ন্যায়বিচারের জাতীয় নীতি" বলে অভিহিত করছে - যদিও তারা জানে যে আফগানিস্তানের ইতিহাস কখনও ন্যায়বিচার পায় নি। 

cover
স্থায়ী শান্তি প্রতিষ্ঠা মূলত আফগান পক্ষের উপর নির্ভর করে, তবে মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের নেতৃত্বাধীন আন্তর্জাতিক সম্প্রদায় এই সংঘাতের একটি অংশীদার ছিল এবং তাদের সেনা বাহিনীর নিরাপদ প্রস্থান নিশ্চিত করার সাথে তাদের দায়িত্ব শেষ হয় না। তারা এখনও উভয় পক্ষের দ্বন্দ্বের সাথে লড়াই করেছে, এখন এটি ব্যবহার করে আলোচনার মাধ্যমে আফগানদের দুর্ভোগের অবসান ঘটাতে মূল আলোচনার দিকে এগিয়ে যেতে পারে
শাহহারজাদ আকবর, আফগানিস্তানের স্বাধীন মানবাধিকার কমিশনের চেয়ারওম্যান
যারা রয়েছে তারা খুব বেশি আশা রাখার বিপক্ষে সতর্কতা অবলম্বন করেছেন:
এই পরিকল্পনার একমাত্র আকর্ষণীয় যুক্তি হল [যদি] এর সাফল্যের অর্থ যুদ্ধবিরতি হয়। তবে যদি দুর্বল, ভয়াবহ, ট্রানজিশনাল কাঠামো ধসে পড়ে - যার উচ্চ সম্ভাবনা রয়েছে, তাহলে যুদ্ধবিরতি স্থায়ী হবে না।
লরেল মিলার, আন্তর্জাতিক ক্রাইসিস গ্রুপের এশিয়া প্রোগ্রামের পরিচালক এবং মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের প্রাক্তন স্টেট ডিপার্টমেন্ট দাপ্তরিক
cover
শান্তি পূর্বের মতো আলোচ্যসূচিতে রয়েছে তবে যুদ্ধও তাই। উভয় পক্ষই গ্রীষ্মের সমস্ত আক্রমণকে সবচেয়ে খারাপের জন্য পরিকল্পনার কথা বলে। 
এটি বাস্তবায়িত হলে এটি একটি অলৌকিক কাজ হবে
শান্তির প্রয়াসে জড়িত একজন আফগান জানান
তবে এমন একটি দেশে যা প্রায় সব কিছুই সয়েছে, এটিই মুনশট এবং অলৌকিক চিহ্নগুলির দিকে লক্ষ্যস্থাপন করছে যা খুব বেশি সুদূরপ্রসারী মনে হচ্ছে না। অন্তহীন যুদ্ধের সমাপ্তির জন্য জনগণ উদ্বিগ্ন এবং তারা চান যত তাড়াতাড়ি সম্ভব সমাপ্তি ঘটুক এই অন্তহীন যুদ্ধের।



তথ্যসূত্র: 

বিবিসি 

Ridmik News is the most used news app in Bangladesh. Always stay updated with our instant news and notification. Challenge yourself with our curated quizzes and participate on polls to know where you stand.

news@ridmik.news
support@ridmik.news
© Ridmik Labs, 2018-2021