স্টারলিংক: মহাকাশে ইলন মাস্কের হাজার হাজার স্যাটেলাইট কেন?
প্রযুক্তি
স্টারলিংক: মহাকাশে ইলন মাস্কের হাজার হাজার স্যাটেলাইট কেন?
ইলন মাস্কের প্রতিষ্ঠান স্পেস-এক্স মহাকাশে হাজার হাজার স্যাটেলাইট উৎক্ষেপণ করছে। অনেকে বলেন, এর মাধ্যমে মহাকাশের দখল নিতে চাচ্ছেন ইলন মাস্ক। 
ছবি: ইন্টারনেট
ছবি: ইন্টারনেট
কথাটা কিছুটা হাস্যকর হলেও যৌক্তিক বলা চলে। ওই স্যাটেলাইটগুলো মাস্কের স্টারলিংক প্রকল্পের অংশ, যার লক্ষ্য মহাকাশ থেকে পৃথিবীর প্রত্যন্ত অঞ্চলে উচ্চ গতির ইন্টারনেট পরিষেবা প্রদান করা। মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র, ব্রিটেন, জার্মানিসহ বিশ্বের মোট ৩৬ দেশে সেবা প্রদান করে থাকে এটি। টেসলার ব্যবসায়ে সর্বাত্মক সফলতা পাওয়ার পর স্টারলিংক দিয়ে রাজত্ব করতে চাচ্ছেন ইলন মাস্ক। চলুন জানা যাক, মাস্কের স্টারলিংক কীভাবে কাজ করে সে সম্পর্কে। 
স্টারলিংক কী এবং কীভাবে কাজ করে?
ছবি: ইন্টারনেট
ছবি: ইন্টারনেট
স্টারলিংক স্যাটেলাইটের বিশাল নেটওয়ার্কের মাধ্যমে ইন্টারনেট পরিষেবা প্রদান করে। প্রত্যন্ত অঞ্চলে বসবাসকারী লোকেরা যারা উচ্চ গতির ইন্টারনেট পেতে পারে না তারাই মূলত স্টারলিংকের গ্রাহক। পোর্টসমাউথ ইউনিভার্সিটির স্পেস প্রজেক্ট ম্যানেজার ড. লুসিন্ডা কিং বলেন, 'যুক্তরাজ্যে এই ক্যাটাগরির মানুষ আছে, তবে আফ্রিকার মতো জায়গায় আরও বেশি মানুষ রয়েছেন। স্টারলিংকের উপগ্রহগুলোকে পৃথিবীর চারপাশে নিম্ন-স্তরের কক্ষপথে রাখা হয়েছে যাতে উপগ্রহ এবং ভূমির মধ্যে সংযোগের গতি যতোটা সম্ভব দ্রুত করা যায়।' 
যুক্তরাজ্যে এই ক্যাটাগরির মানুষ আছে, তবে আফ্রিকার মতো জায়গায় আরও বেশি মানুষ রয়েছেন। স্টারলিংকের উপগ্রহগুলোকে পৃথিবীর চারপাশে নিম্ন-স্তরের কক্ষপথে রাখা হয়েছে যাতে উপগ্রহ এবং ভূমির মধ্যে সংযোগের গতি যতোটা সম্ভব দ্রুত করা যায়।
ড. লুসিন্ডা কিং
ছবি: বিবিসি
ছবি: বিবিসি
যাইহোক, পৃথিবীর সম্পূর্ণ কভারেজ প্রদানের জন্য আরও অনেক নিম্ন-স্তরের উপগ্রহের প্রয়োজন। ২০১৮ সাল থেকে স্টারলিংক প্রায় ৩০০০ স্যাটেলাইট মহাকাশে পাঠিয়েছে বলে ধারণা করা হয়। ক্রিস হল মনে করেন, প্রতিষ্ঠানটি শেষ পর্যন্ত ১২ হাজারের অধিক স্যাটেলাইট পাঠাতে পারে। এসব উপগ্রহ ব্যবহার করে মরুভূমি এবং পাহাড়ের দূরবর্তী স্থানে ইন্টারনেট সংযোগের সমস্যার সমাধান করা যেতে পারে। এটি ওই এলাকায় পৌঁছানোর জন্য তারের এবং মাস্টের মতো বিশাল পরিমাণে অবকাঠামো নির্মাণের প্রয়োজনীয়তাকে যুক্ত করে। 
স্টারলিংকে ব্যয়
স্ট্যান্ডার্ড ইন্টারনেট প্রদানকারীদের তুলনায়, স্টারলিংক মোটেও সস্তা নয়। এটি গ্রাহকদের কাছ থেকে প্রতি মাসে প্রায় ৯৯ ডলার বিল আদায় করে। স্যাটেলাইটের সাথে সংযোগ করার জন্য প্রয়োজনীয় ডিশ এবং রাউটারের দাম প্রায় সাড়ে ৫০০ ডলারের মতো। যাইহোক, যুক্তরাজ্যের ৯৬ শতাংশ পরিবার ইতোমধ্যেই এই উচ্চ-গতির ইন্টারনেট সেবার আওতায় রয়েছে। ইউরোপিয়ান ইউনিয়ন ও যুক্তরাষ্ট্রের ৯০ শতাংশ পরিবারও উচ্চ গতির ইন্টারনেট ব্যবহার করছে। লন্ডন ইউনিভার্সিটির ইনস্টিটিউট অব স্পেস পলিসি অ্যান্ড ল-এর অধ্যাপক সাঈদ মোস্তেশার বলেছেন, 'বেশিরভাগ উন্নত বিশ্বে ইতোমধ্যেই ভালোভাবে স্টারলিংক যুক্ত হয়েছে। তবে প্রতিষ্ঠানটি অতিরিক্ত রাজস্বের জন্য বাজারের একটি ছোট অংশের উপর নির্ভর করছে।'
বেশিরভাগ উন্নত বিশ্বে ইতোমধ্যেই ভালোভাবে স্টারলিংক যুক্ত হয়েছে। তবে প্রতিষ্ঠানটি অতিরিক্ত রাজস্বের জন্য বাজারের একটি ছোট অংশের উপর নির্ভর করছে।
অধ্যাপক সাঈদ মোস্তেশার
ছবি: বিবিসি
ছবি: বিবিসি
সংস্থাটি বলেছে যে, এটি বর্তমানে সেবা প্রদান করে এমন ৩৬টি দেশে মোট ৪ লাখ গ্রাহক রয়েছে। যার বেশিরভাগ উত্তর আমেরিকা, ইউরোপ এবং অস্ট্রেলিয়ায়। এটি পরিবার এবং ব্যবসা উভয়ের সমন্বয়ে গঠিত।
সংস্থাটি বলেছে যে, এটি বর্তমানে সেবা প্রদান করে এমন ৩৬টি দেশে মোট ৪ লাখ গ্রাহক রয়েছে। যার বেশিরভাগ উত্তর আমেরিকা, ইউরোপ এবং অস্ট্রেলিয়ায়। এটি পরিবার এবং ব্যবসা উভয়ের সমন্বয়ে গঠিত। যদিও আগামী বছর, স্টারলিংক তার কভারেজ আফ্রিকা, দক্ষিণ আমেরিকা এবং এশিয়াসহ বিশ্বের এমন অঞ্চল যেখানে ইন্টারনেট সেবা অনেক পুরনো, সেখানে প্রসারের পরিকল্পনা করেছে। ক্রিস হল বলেন, 'স্টারলিংকের দাম আফ্রিকার অনেক পরিবারের জন্য খুব বেশি হতে পারে, তবে এটি প্রত্যন্ত অঞ্চলে স্কুল এবং হাসপাতালগুলোকে যুক্ত করতে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করবে।'
কীভাবে স্টারলিংক ইউক্রেনে সাহায্য করছে?
ছবি: ইন্টারনেট
ছবি: ইন্টারনেট
'স্টারলিংক ইউক্রেনের জনসাধারণের পরিষেবা এবং সরকারের কার্যক্রম চালু রেখেছে। রাশিয়ানরা এটি নিষ্ক্রিয় করার একটি উপায়ও খুঁজে পায়নি।
ইউক্রেনে রুশ আগ্রাসন শুরু হওয়ার সাথে সাথে দেশটি ইউক্রেনীয় ইন্টারনেট পরিষেবা বন্ধ করে দেয় এবং সোশ্যাল মিডিয়া ব্লক করার চেষ্টা করে। যুদ্ধ শুরুর পরপরই ইলন মাস্ক ইউক্রেনে স্টারলিংক পরিষেবা বাড়ান। মাস্কের নির্দেশে স্টারলিংকের প্রায় ১৫০০০ সেট ডিশ এবং রাউটার সেখানে পাঠানো হয়। এই প্রসঙ্গে ক্রিস হল বলেন, 'স্টারলিংক ইউক্রেনের জনসাধারণের পরিষেবা এবং সরকারের কার্যক্রম চালু রেখেছে। রাশিয়ানরা এটি নিষ্ক্রিয় করার একটি উপায়ও খুঁজে পায়নি।'
ছবি: ইন্টারনেট
ছবি: ইন্টারনেট
বিবিসির দেয়া তথ্যমতে, এর সেবা যুদ্ধক্ষেত্রেও ব্যবহার করা হচ্ছে। কিংস কলেজ লন্ডনের প্রতিরক্ষা বিষয়ক গবেষক ড. মেরিনা মিরন বলেছেন, 'ইউক্রেনীয় বাহিনী এটিকে যোগাযোগের জন্য ব্যবহার করছে। খোলা মাঠে সেনা সদর দফতর এবং সৈন্যদের মধ্যে সমন্বয় করছে এটি। এর সিগন্যালগুলো সাধারণ রেডিও সিগন্যালের মতো জ্যাম করা যায় না এবং কিট সেট আপ করতে এটি মাত্র ১৫ মিনিট সময় ব্যয় হয়।'
স্টারলিংক কী মহাকাশ বিশৃঙ্খলা তৈরি করছে?
স্টারলিংক ছাড়াও, ওয়ান ওয়েভ এবং ভিসাটা-এর মতো প্রতিদ্বন্দ্বী রয়েছে বিশ্ববাজারে যারা স্যাটেলাইটের মাধ্যমে ইন্টারনেট পরিষেবা প্রদান করে। এই প্রতিযোগিতার কারণে হাজার হাজার স্যাটেলাইটকে মহাকাশের নিম্ন-আর্থ কক্ষপথে প্রেরণ করা হচ্ছে। এভাবে চলতে থাকলে বড়সড় সমস্যার সৃষ্টি হতে পারে বলে জানান অধ্যাপক সাইদ। তিনি বলেন, 'এটি সংঘর্ষের ক্ষেত্রে স্থানকে কম নিরাপদ করে তোলে। 
ছবি: ইন্টারনেট
ছবি: ইন্টারনেট
যদি অনেকগুলো টুকরো থাকে তবে এটি ভবিষ্যতে নিম্ন-পৃথিবী কক্ষপথকে অব্যবহারযোগ্য করে তুলতে পারে। আমরা নিম্ন-পৃথিবী কক্ষপথ থেকে উচ্চতর কক্ষপথে যেতে পারি না, যেখানে আমাদের ন্যাভিগেশনাল স্যাটেলাইট এবং টেলিকম উপগ্রহ অবস্থিত।
স্যাটেলাইটগুলো অন্যান্য স্যাটেলাইটকে আঘাত করতে পারে এবং ধ্বংসাবশেষের টুকরো তৈরি করতে পারে। এর ফলে, উচ্চ গতিতে উড়ে যাওয়ার সময় এটি অনেক বেশি ক্ষতিসাধন করবে।' সম্প্রতি স্টারলিংকের অনেকগুলো স্যাটেলাইট কক্ষপথ থেকে স্থানচ্যুত হয়েছে। পোর্টসমাউথ ইউনিভার্সিটির ডক্টর কিং বলেছেন, 'যদি অনেকগুলো টুকরো থাকে তবে এটি ভবিষ্যতে নিম্ন-পৃথিবী কক্ষপথকে অব্যবহারযোগ্য করে তুলতে পারে। আমরা নিম্ন-পৃথিবী কক্ষপথ থেকে উচ্চতর কক্ষপথে যেতে পারি না, যেখানে আমাদের ন্যাভিগেশনাল স্যাটেলাইট এবং টেলিকম উপগ্রহ অবস্থিত।'
ছবি: ইন্টারনেট
ছবি: ইন্টারনেট
সত্যিই স্টারলিংকের স্যাটেলাইটগুলো জ্যোতির্বিজ্ঞানীদের জন্য সমস্যা তৈরি করছে। সূর্যোদয় এবং সূর্যাস্তের সময়, এগুলোকে খালি চোখে দেখা যেতে পারে কারণ সূর্য তাদের ডানায় ঝলমল করে। এটি টেলিস্কোপের চিত্রগুলোতে রেখা সৃষ্টি করতে পারে। এতে করে তারা এবং গ্রহগুলোর দৃশ্যকে আরও অস্পষ্ট করে। অধ্যাপক মোস্তেশার বলেন, 'জ্যোতির্বিজ্ঞানীরা সমস্যাগুলো প্রথম দিকে দেখেছিলেন এবং তারা প্রথম অভিযোগ করেছিলেন।' তবে ইলন মাস্ক ব্যবসা বড় করতে গিয়ে যদি মহাকাশে আরও হাজার হাজার স্যাটেলাইট প্রেরণ করেন তবে আমাদের পৃথিবীর নিম্ন কক্ষপথ ব্যাপকভাবে ক্ষতিগ্রস্ত হবে।

তথ্যসূত্র: বিবিসি
প্রযুক্তি
আরো পড়ুন