Link copied.
স্বাস্থ্য
cover

ফুসফুসের রোগের লক্ষণসমূহ

স্বাস্থ্য
১ দিন আগে

বুক ব্যথা-কোনও অজানা কারণে বুকে যদি ব্যথা হয় আর তা যদি এক মাস বা তার বেশি সময় ধরে থাকে তাহলে আপনার সতর্ক হওয়া উচিত। যদি শ্বাস নেওয়ার সময় বুকে ব্যথা অনুভব করেন তাহলে যত তাড়াতাড়ি সম্ভব চিকিৎসকের পরামর্শ নিন। দীর্ঘস্থায়ী শ্লেষ্মা-শ্লেষ্মা যাকে থুতু বা কফও বলা হয়, সংক্রমণ বা প্রদাহের বিরুদ্ধে আমাদের সুরক্ষা প্রদান করে। যদি অতিরিক্ত শ্লেষ্মা উৎপাদন এক মাস বা তার বেশি সময় ধরে চলতে থাকে তবে এটি ফুসফুসের রোগের কারণেও হয়ে থাকতে পারে। হঠাৎ ওজন কমে যাওয়া- যদি ডায়েট বা ওয়ার্কআউট ছাড়াই ওজন কমে যায়। শ্বাস-প্রশ্বাসের পরিবর্তন- যদি আপনি শ্বাসকষ্টের শিকার হন বা আপনার স্বাভাবিক শ্বাস নিতে অসুবিধার হয়, তবে এটি ফুসফুসের রোগের লক্ষণ হতে পারে। রক্তের সঙ্গে ক্রমাগত কাশি-যদি কাশি আট সপ্তাহ বা তার বেশি সময় ধরে স্থায়ী থাকে অথবা কাশির সঙ্গে যদি রক্ত পড়তে থাকে, তাহলে খুব দ্রুত চিকিৎসকের পরামর্শ নেয়া দরকার।

cover

বেল রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা বাড়ায়

স্বাস্থ্য
২ দিন আগে

বেল একটি উল্লেখযোগ্য ফল। এটি আমাদের দেহের অনেক উপকার করে থাকে। বেলে রয়েছে প্রচুর পরিমাণে ভিটামিন সি, এ, ক্যালসিয়াম, ফসফরাস ও পটাসিয়াম। বেলে প্রচুর পমিাণ ভিটামিন সি থাকে, যা স্কার্ভি রোগ প্রতিরোধ করে। এটি প্রাকৃতিক অ্যান্টিঅক্সিডেন্ট, যা আমাদের দেহের রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা বৃদ্ধি করে এবং সর্দি-কাশি ও ছোঁয়াচে রোগ থেকে বাঁচিয়ে রাখে। ভিটামিন এ আমাদের চোখের দৃষ্টিশক্তি ভালো রাখে, রাতকানা রোগ প্রতিরোধ করে। ডায়রিয়া ও আমাশয় রোগ সারিয়ে তোলে। অন্ত্রের কৃমিসহ নানা রোগজীবাণু ধ্বংস করে। নিয়মিত বেল খেলে এর ল্যাকটিভ গুণ কোষ্ঠকাঠিন্য দূর হয় এবং মুখের ব্রণ দূর করে ও ত্বক ভালো থাকে। বেল পাকস্থলীর আলসারসহ নানা সমস্যা দূর করে। বেলের উপাদান মিউকাস মেমব্রেনের গঠনে সহায়তা করে এবং চামড়ার সৌন্দর্য বাড়িয়ে তোলে। বেলের ভিটামিন বি১ ও বি২ হৃৎপিণ্ড ও লিভার ভালো রাখতে সাহায্য করে। নিয়মিত বেল খেলে কোলন ক্যান্সার হওয়ার প্রবণতা কমিয়ে দেয়। বেলে থাকে প্রচুর পরিমাণে ফাইবার বা আঁশ, যা মুখের ব্রণ সারাতে সাহায্য করে।

cover

টিকার সরবরাহ নিশ্চিতে জেনেভা যাচ্ছেন স্বাস্থ্যমন্ত্রী

কোভ্যাক্সের মাধ্যমে বিনামূল্যে এবং তুলনামূলক কম দামে টিকা পাওয়ার যে লাইনআপ ঠিক হয়েছে তা যথাযথ প্রটোকল মেনে সময় মত সরবরাহ নিশ্চিতকরণ বিষয়ে আলোচনায় চলতি মাসের সমাপনীতে সুইজারল্যান্ড সফরে যাচ্ছেন স্বাস্থ্যমন্ত্রী জাহিদ মালেক। জেনেভা সফরকালে বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার মহাপরিচালকসহ জ্যেষ্ঠ কর্মকর্তাদের সঙ্গে তার বৈঠক হওয়ার কথা রয়েছে। জেনেভা মিশনের দায়িত্বশীল কর্মকর্তাদের হিসাব মতে, পূর্ব প্রতিশ্রুতি অনুযায়ী কোভ্যাক্সের মাধ্যমে বিনামূল্যে মোট ৬ কোটি টিকা পাবে বাংলাদেশ, যার একটি উল্লেখযোগ্য অংশ ঢাকায় পৌঁছেছে। তাছাড়া কোভ্যাক্সের নেগোসিয়েশনে তুলনামূলক কম দামে আরও সাড়ে ১০ কোটি ডোজ টিকা কেনা হয়েছে। চীনের দু'টি কোম্পানি ওই টিকা সরবরাহ করবে। এছাড়া দ্বিপক্ষীয় বাণিজ্যিক চুক্তির আওতায় চীনের সিনোফর্মের কাছ থেকে মোট সাড়ে ৭ কোটি ডোজ টিকা কেনা হচ্ছে। ভবিষ্যতে সব মিলে প্রায় ২৫ কোটি ডোজের বেশি টিকা পাওয়ার আশ্বাস মিলেছে।

cover

সাদা নাকি বাদামি ডিমের পুষ্টিগুণ বেশি?

সাদা নাকি বাদামি রঙের ডিম কেনা নিয়ে দ্বিধায় পড়েননি এমন কাউকে খোঁজে পাওয়া কঠিন। এমনকি অনেকে ভেবে থাকেন কোন রংয়ের ডিমে পুষ্টিগুণ বেশি রয়েছে। এসব নিয়ে গবেষণা করে সঠিক উত্তর খোঁজে পেয়েছেন বিজ্ঞানীরা। গবেষণায় জানা গেছে, বাদামি বা লালচে রঙের ডিমে ওমেগা-থ্রি কিছুটা পরিমাণে বেশি থাকে। কিন্তু সেই বাড়তি ওমেগা-থ্রি-র পরিমাণ অত্যন্ত নগন্য। ফলে তার জন্য আলাদা করে বাদামি ডিম খাওয়ার কোনও মানে হয় না। পুষ্টিগুণের বিষয়ে গবেষণা বলছে, দু’ধরনের ডিমেই পুষ্টিগুণের মাত্রা সমান। সেক্ষেত্রে প্রশ্ন উঠছে, এই দু’ধরনের ডিমের রং আলাদা কেন? গবেষণাপত্র অনুযায়ী, এটা পুরোপুরি নির্ভর করে মুরগির জিনের ওপর। স্বাদের বিষয়ে বলা হয়েছে, যে কোনও দু’টির ডিমের স্বাদই আলাদা হতে পারে। তার সঙ্গে খোলার রঙের কোনও সম্পর্ক নেই।

cover

করোনা টিকার তৃতীয় ডোজের প্রয়োজন নেই: গবেষণা

উন্নত দেশগুলো কোভিড টিকার তৃতীয় ডোজ দেয়া শুরু করেছে। তবে সোমবার প্রখ্যাত ব্রিটিশ চিকিৎসা সাময়িকী ল্যানসেটে প্রকাশিত এক গবেষণায় বিজ্ঞানীরা জানিয়েছেন, সংক্রমণ প্রতিরোধে স্বাভাবিকভাবে টিকার যে ডোজ দেয়া হয় সেটাই যথেষ্ট কার্যকর। তৃতীয় ডোজ দেয়ার কোনো প্রয়োজন নেই। গবেষণাটির প্রধান আনা-মারিয়া হেনাও-রেস্টেরেপো বলেছেন, ‘এখন পর্যন্ত হওয়া গবেষণায় এমন কোনো প্রমাণ পাওয়া যায়নি যে গুরুতর সংক্রমণ ঠেকানোর ক্ষেত্রে টিকার সুরক্ষা হ্রাস পায়। তাই যারা এখনো টিকা পায়নি তাদের আগে টিকা দেওয়া উচিত।’ এদিকে, কিছু কিছু দেশে করোনার বাড়তি টিকা দেয়া শুরুর পর থেকেই বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা বলে আসছে, দরিদ্র দেশগুলো অল্প কিছু টিকা পেয়েছে। কোটি কোটি মানুষ এক ডোজও পায়নি। এমন পরিস্থিতিতে তৃতীয় ডোজ দেয়া স্থগিত রাখা উচিত।

coverশীর্ষ খবর

চলতি মাসে আরো দেড় কোটি টিকা আসবে: স্বাস্থ্যমন্ত্রী

দেশে এ মুহূর্তে করোনা টিকার কোনো সংকট নেই উল্লেখ করে স্বাস্থ্য ও পরিবারকল্যাণ মন্ত্রী জাহিদ মালেক বলেছেন, এ মাসের শুরুতে ৫৪ লাখ ভ্যাকসিন এসেছে। মাসের বাকি সময়ে আরো দেড় কোটি ভ্যাকসিন দেশে আসবে। রবিবার (১২ সেপ্টেম্বর) দুপুরে রাজধানীর নবাব আব্দুল গণি রোডে ওসমানী স্মৃতি মিলনায়তনে “জুনিয়র কনসালটেন্ট (অ্যানেস্থেসিওলজি) পদে নতুন নিয়োগপ্রাপ্ত চিকিৎসকদের যোগদান ও ওরিয়েন্টেশন প্রোগ্রামে” প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এ কথা জানান। এর আগে গত শুক্রবার (১০ সেপ্টেম্বর) সকালে রাজধানীর মহাখালীর তিতুমীর সরকারি কলেজে বিডিএস প্রথম বর্ষের ভর্তি পরীক্ষা পরিদর্শন শেষে সাংবাদিকদের স্বাস্থ্যমন্ত্রী বলেছিলেন, প্রতি সপ্তাহে আমরা ৫০ লাখ ডোজ টিকা পাওয়ার সিডিউল পেয়েছি। আজ ৫০ লাখ ডোজ টিকা ঢাকায় আসবে। এভাবে চলতি মাসের চার সপ্তাহে চারটি টিকার চালান আসার কথা রয়েছে। প্রতি চালানে আসবে ৫০ লাখ ডোজ টিকা। আগামী নভেম্বর পর্যন্ত এটি চলমান থাকবে।

coverশীর্ষ খবর

২৪ ঘণ্টায় হাসপাতালে ভর্তি আরও ৩১৯ ডেঙ্গু রোগী

গত ২৪ ঘণ্টায় ৩১৯ জন নতুন ডেঙ্গু রোগী বিভিন্ন হাসপাতালে ভর্তি হয়েছেন। এর মধ্যে রাজধানীতেই রয়েছেন গত ২৪ ঘণ্টায় ২৪৪ জন। দেশে সেপ্টেম্বরের ১২ দিনে ৩ হাজার ৫১৯ জন ডেঙ্গু রোগী বিভিন্ন হাসপাতালে ভর্তি হন। ডেঙ্গুতে চলতি বছরে এখন পর্যন্ত ৫৪ জনের মৃত্যু হয়েছে। এর মধ্যে সেপ্টেম্বরের এই কয়েকদিনে ৮ জন, আগস্টে মারা গেছেন ৩৪ জন এবং জুলাইতে ১২ জন। আগস্টে ৭ হাজার ৬৯৮ জন, জুলাইয়ে ২ হাজার ২৮৬ জন এবং জুন মাসে ২৭২ জন ডেঙ্গু রোগী বিভিন্ন হাসপাতালে ভর্তি হন। আজ স্বাস্থ্য অধিদপ্তর থেকে এই তথ্য জানানো হয়েছে। ঢাকার বাইরেও ডেঙ্গু বাড়ছে। গত ২৪ ঘণ্টায় ঢাকার বাইরে নতুন ভর্তি রোগীর সংখ্যা ৭৫ জন। বর্তমানে দেশের বিভিন্ন সরকারি ও বেসরকারি হাসপাতালে মোট ভর্তি ডেঙ্গু রোগীর সংখ্যা ১ হাজার ২৬০ জন। ঢাকার ৪১টি সরকারি ও বেসরকারি হাসপাতালে বর্তমানে মোট ভর্তি রোগী আছেন ১ হাজার ৭৯ জন। অন্যান্য বিভাগে বর্তমানে ভর্তি আছেন ১৮১ জন।

coverফিচার

পৃথিবীতে প্রতি চারজনে একজন মানসিক ব্যাধিতে ভোগে!

স্বাস্থ্য
১৫ দিন আগে

যারা এরোটোম্যানিয়ায় ভুগছেন তারা নিশ্চিত ধরে নেন যে কেউ তাদের প্রেমে পড়েছে। সাধারণত কোন একজন উচ্চতর সামাজিক মর্যাদার লোক বা বিখ্যাত ব্যক্তি তার প্রেমে পড়েছে। রোগীরা বিশ্বাস করে যে তাদের কল্পিত ভক্তরা তাদের প্রতি বিশেষ লক্ষ্য রাখে। গোপন সংকেত, টেলিপ্যাথি এবং মিডিয়াতে কোডেড বার্তার মাধ্যমে তাদের প্রতি মনের ভাব প্রকাশ করে। অসুস্থতার বিরুদ্ধে লড়াই করা কঠিন। এমনকি যদি অনুমিত প্রেমিক/প্রেমিকা সরাসরি "না" বলে, তবে এরোটোম্যানিয়ার রোগী এটিকে একটি গোপন কৌশলের অংশ হিসেবে ব্যাখ্যা করে। তারা মনে করে এটি করা হয়েছে যাতে তাদের সম্পর্ককে সমাজ থেকে আড়াল করে রাখা যায়। এই সিন্ড্রোমটি একটি সিনেমায় উত্থাপিত হয়েছে- 'ফ্রম দ্য ল্যান্ড অব দ্য মুন' (মারিয়ন কোটিলার্ডের চরিত্র)।

বিস্তারিত পড়ুন
coverশীর্ষ খবর

২৪ ঘণ্টায় হাসপাতালে ভর্তি ৩০১ ডেঙ্গু রোগী

গত ২৪ ঘণ্টায় ডেঙ্গুতে আক্রান্ত হয়ে হাসপাতালে ভর্তি হয়েছেন ৩০১ জন। আর চলতি মাসের প্রথম ১১ দিনে ডেঙ্গুতে শনাক্ত হয়েছেন তিন হাজার ২০০ জন। আজ শনিবার ( ১১ সেপ্টেম্বর) স্বাস্থ্য অধিদফতরের হেলথ ইমার্জেন্সি অপারেশন সেন্টার ও কন্ট্রোল রুম এ তথ্য জানায়। কন্ট্রোল রুম জানায়, গত ২৪ ঘণ্টায় ঢাকার হাসপাতালে ভর্তি হয়েছেন ২৫৩ জন আর ঢাকার বাইরের হাসপাতালে ভর্তি হয়েছেন ৪৮ জন। বর্তমানে দেশের বিভিন্ন সরকারি ও বেসরকারি হাসপাতালে ডেঙ্গুতে আক্রান্ত হয়ে ভর্তি আছেন এক হাজার ২৭১ জন। তাদের মধ্যে ঢাকার সরকারি ও বেসরকারি ৪১টি হাসপাতালে বর্তমানে ভর্তি আছেন এক হাজার ৮৩ জন আর ঢাকার বাইরের হাসপাতালে ভর্তি আছেন ১৮৮জন। চলতি বছরে এখন পর্যন্ত মোট ১৩ হাজার ৫৫৬ জন ডেঙ্গু আক্রান্ত রোগী হাসপাতালে ভর্তি হয়েছেন জানিয়ে কন্ট্রোল রুম জানায়, তাদের মধ্যে চিকিৎসা নিয়ে বাড়ি ফিরেছেন ১২ হাজার ২৩১জন।

coverশীর্ষ খবর

২৪ ঘণ্টায় হাসপাতালে ভর্তি আরও ২৪৮ ডেঙ্গু রোগী

ডেঙ্গুতে আক্রান্ত হয়ে গত ২৪ ঘণ্টায় দেশের বিভিন্ন হাসপাতালে আরও ২৪৮ জন রোগী হাসপাতালে ভর্তি হয়েছে। এ নিয়ে চলতি বছরে ডেঙ্গু নিয়ে হাসপাতালে ভর্তি রোগীর সংখ্যা বেড়ে দাঁড়াল ১৩ হাজার ২৫৫ জনে। এ বছর এখন পর্যন্ত ডেঙ্গুতে আক্রান্ত হয়ে ৫৪ জনের মৃত্যু হয়েছে। আজ শুক্রবার স্বাস্থ্য অধিদফতরের হেলথ ইমার্জেন্সি অপারেশন সেন্টার ও কন্ট্রোল রুম থেকে পাঠানো ডেঙ্গুবিষয়ক বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়েছে, গত ২৪ ঘণ্টায় দেশের বিভিন্ন সরকারি-বেসরকারি হাসপাতালে ভর্তি ২৪৮ জনের মধ্যে ঢাকাতেই ২১৪ জন এবং ঢাকার বাইরের রয়েছে ২৪ জন। বর্তমানে দেশের বিভিন্ন সরকারি ও বেসরকারি হাসপাতালে মোট ১ হাজার ২২১ জন ডেঙ্গু রোগী ভর্তি আছে। এর মধ্যে ঢাকার ৪১টি সরকারি ও বেসরকারি হাসপাতালে এক হাজার ৪১ জন এবং অন্যান্য বিভাগে বর্তমানে সর্বমোট ১৮০ জন রোগী ভর্তি আছে। চলতি বছর এখন পর্যন্ত হাসপাতাল থেকে সুস্থ হয়ে বাড়ি ফিরেছেন ১১ হাজার ৯৮০ জন রোগী।

cover

গত ২৪ ঘণ্টায় হাসপাতালে ভর্তি আরও ২৫৬ ডেঙ্গু রোগী

গত ২৪ ঘণ্টায় নতুন করে ২৫৬ জন ডেঙ্গু রোগী বিভিন্ন হাসপাতালে ভর্তি হয়েছেন। এর মধ্যে রাজধানীতেই রয়েছেন ২১২ জন। দেশে সেপ্টেম্বরের ৮ দিনে ২ হাজার ৩৩৪ জন ডেঙ্গু রোগী বিভিন্ন হাসপাতালে ভর্তি হন। ডেঙ্গুতে চলতি বছরে এখন পর্যন্ত ৫৩ জনের মৃত্যু হয়েছে। এর মধ্যে সেপ্টেম্বরের এই কয়েকদিনে ৭ জন, আগস্টে মারা গেছেন ৩৪ জন এবং জুলাইতে ১২ জন। আগস্টে ৭ হাজার ৬৯৮ জন, জুলাইয়ে ২ হাজার ২৮৬ জন এবং জুন মাসে ২৭২ জন ডেঙ্গু রোগী বিভিন্ন হাসপাতালে ভর্তি হন। আজ স্বাস্থ্য অধিদপ্তর থেকে এই তথ্য জানানো হয়েছে। ঢাকার বাইরেও ডেঙ্গু বাড়ছে। গত ২৪ ঘণ্টায় ঢাকার বাইরে নতুন ভর্তি রোগীর সংখ্যা ৪৪ জন। বর্তমানে দেশের বিভিন্ন সরকারি ও বেসরকারি হাসপাতালে মোট ভর্তি ডেঙ্গু রোগীর সংখ্যা ১ হাজার ২৪২ জন। ঢাকার ৪১টি সরকারি ও বেসরকারি হাসপাতালে বর্তমানে মোট ভর্তি রোগী আছেন ১ হাজার ৮৮ জন। অন্যান্য বিভাগে বর্তমানে ভর্তি আছেন ১৫৪ জন।

cover

শিশুর নতুন দাঁতের যত্ন নেবেন যেভাবে

স্বাস্থ্য
২০ দিন আগে

সাধারণত ছয় থেকে নয় মাসের মধ্যে শিশুদের দুধের দাঁত উঠে। নতুন দাঁত গজানোর সময়ে অনেক শিশুরই নানা সমস্যা হয়। এ ধরনের সমস্যা কমাতে যা করণীয়: নতুন দাঁত ওঠার সময়ে অনেক শিশুরই ব্যথা হয়। সব শিশুর ব্যথা সহ্য করার ক্ষমতা সমান নয়। সে ক্ষেত্রে কারও অতিরিক্ত ব্যথা হলে, চিকিৎসকের পরামর্শ নিতে হবে। এই সময়ে শিশুদের লালার পরিমাণ বেড়ে যায়। পাতলা সুতির কাপড় দিয়ে বার বার তা মুছে দেওয়া দরকার। অনেক শিশুই এই সময়ে খিটখিটে হয়ে যায়। তাদের ক্ষুধা কমে যায়। এগুলি খুবই স্বাভাবিক সমস্যা। তবে পেটের গণ্ডগোল, জ্বর বা বমি হতে থাকলে চিকিৎসকের পরামর্শ নিতে হবে। এই সময়ে শিশুদের মধ্যে কামড়ানোর প্রবণতা বাড়ে। সেটি নিয়ন্ত্রণ করতে চিকিৎসকের পরামর্শে কামড়ানোর খেলনা দিন। তাতে দাঁতের ক্ষতি হবে না। এগুলি শিশুকে দেওয়ার আগে ফ্রিজে রেখে ঠান্ডা করে নিতে পারেন। তাতে শিশুর আরাম লাগবে। নতুন দাঁত ওঠার সময়ে শিশুদের মিষ্টি খাবার কম দেওয়া উচিত। বিশেষ করে রাতে একেবারেই দেওয়া উচিত নয় বলেই জানিয়েছেন শিশু চিকিৎসকরা।

coverশীর্ষ খবর

ডেঙ্গু আক্রান্ত ২৬ শতাংশের বয়স ১০ বছরের নিচে

ডেঙ্গু আক্রান্তদের মধ্যে শিশুরাই বেশি। চলতি বছরে দেশে ডেঙ্গু আক্রান্তদের মধ্যে সর্বোচ্চ ২৬ দশমিক ১ শতাংশের বয়স ১০ বছরের নিচে। গত ২৪ ঘণ্টায় দেশে ২৭৫ জন নতুন ডেঙ্গু রোগী বিভিন্ন হাসপাতালে ভর্তি হয়েছেন। এর মধ্যে রাজধানীতেই রয়েছেন গত ২৪ ঘণ্টায় ২২০ জন। একদিনে ডেঙ্গু শনাক্ত রোগীর মধ্যে শূন্য থেকে ১ বছরের মধ্যে রয়েছে ১ দশমিক ৪ শতাংশ, শূন্য থেকে ১০ বছরের মধ্যে ২৬ দশমিক ১ শতাংশ, ১১ থেকে ২০ বছরের রয়েছে ২২ দশমিক ৩ শতাংশ, ২১ থেকে ৩০ বছরের মধ্যে ১৯ শতাংশ, ৩১ থেকে ৪০ বছরের ১০ দশমিক ৪ শতাংশ, ৪১ থেকে ৫০ বছরের ১২ দশমিক ৩ শতাংশ, ৫১ থেকে ৬০ বছরের ৫ দশমিক ২ শতাংশ এবং ৬০ বছরের উপরে ৩ দশমিক ৩ শতাংশ রয়েছে। সেপ্টেম্বরের ৬ দিনে ১ হাজার ৭৩৫ জন ডেঙ্গু রোগী বিভিন্ন হাসপাতালে চিকিৎসার জন্য ভর্তি হয়েছেন। দেশে ডেঙ্গুতে চলতি বছরে এখন পর্যন্ত ৫২ জনের মৃত্যু হয়েছে। এর মধ্যে সেপ্টেম্বরের এই কয়েকদিনে ৬ জন।

coverশীর্ষ খবর

২৪ ঘণ্টায় হাসপাতালে ভর্তি আর ২৭৫ ডেঙ্গু রোগী

ডেঙ্গু জ্বরে আক্রান্ত হয়ে ২৪ ঘণ্টায় (সোমবার সকাল ৮টা পর্যন্ত) ২৭৫ জন হাসপাতালে ভর্তি হয়েছেন। এ নিয়ে চলতি বছর দেশে হাসপাতালে ভর্তি হয়েছেন, এমন ডেঙ্গু রোগীর সংখ্যা ১২ হাজার ছাড়িয়ে ১২ হাজার ৯১ জনে দাঁড়াল। আর বর্তমানে রাজধানীর বিভিন্ন হাসপাতালে ১ হাজার ২৩৩ জন ও ঢাকার বাইরে ১৫৯ জন ডেঙ্গু রোগী ভর্তি আছেন। আজ সোমবার বিকালে এসব তথ্য জানায় স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের হেলথ ইমার্জেন্সি অপারেশন সেন্টার অ্যান্ড কন্ট্রোল রুম। স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের তথ্য অনুযায়ী, হাসপাতালে আজ ভর্তি রোগীসহ দেশে চলতি মাসে হাসপাতালে ভর্তি হয়েছেন ১ হাজার ৭৩৫ জন। গত ২৪ ঘণ্টায় ভর্তি রোগীদের মধ্যে ২২০ জন ঢাকার বিভিন্ন হাসপাতালে এবং ৫৫ জন ঢাকার বাইরের হাসপাতালে চিকিৎসাধীন। গত আগস্ট মাসে ৭ হাজার ৬৯৮ জনের, জুলাইয়ে ২ হাজার ২৮৬, জুনে মাসে ২৭২ এবং মে মাসে ৪৩ জনের ডেঙ্গু শনাক্ত হয়। চলতি বছর এখন পর্যন্ত মোট ৫২ জন ডেঙ্গুতে মারা গেছেন।

cover

হার্টঅ্যাটাকের ঝুঁকি কমানোর উপায়

স্বাস্থ্য
২১ দিন আগে

হার্টঅ্যাটাকে মৃত্যুর সংখ্যা বেড়েই চলেছে। হৃদরোগ যে কোনো বয়সি মানুষের হতে পারে। হার্টের অসুখ সময়মতো ধরা না পড়লে বিপদের কারণ হতে পারে। জীবনযাপনে সচেতনতা অবলম্বন করে হৃদরোগের ঝুঁকি কমিয়ে আনা সম্ভব। এ বিষয়ে সিডিসি (সেন্টারস ফর ডিজিজ কন্ট্রোল অ্যান্ড প্রিভেনশন) বলছে, অগোছালো জীবনধারা, বয়সবৃদ্ধি এবং পারিবারিক রোগের ইতিহাস হৃদরোগ ও হার্টঅ্যাটাকের ঝুঁকি বাড়াতে পারে। হার্টঅ্যাটাকের ঝুঁকি থেকে বাঁচতে স্বাস্থ্যকর জীবনযাপনের বিকল্প নেই। আসুন জেনে নিই হার্টঅ্যাটাকের ঝুঁকি কমানো কিছু টিপস সম্পর্কে— ১. হার্টঅ্যাটাকের ঝুঁকি কমাতে কোলেস্টেরলের মাত্রা নিয়ন্ত্রণে রাখা অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ। সিডিসি বলছে, আপনার রক্তের কোলেস্টেরলের মাত্রা বেড়ে যাওয়ার সঙ্গে সঙ্গে হৃদরোগের ঝুঁকিও বেড়ে যায়। এছাড়াও, ২. উচ্চ রক্তচাপকে নিয়ন্ত্রণে রাখা। ৩. ওজন নিয়ন্ত্রণে রাখলে অনেকটাই হার্টঅ্যাটাকের ঝুঁকি কমে যেতে পারে। ৪. ধূমপান ও অ্যালকোহলকে পরিহার করুন।


Ridmik News is the most used news app in Bangladesh. Always stay updated with our instant news and notification. Challenge yourself with our curated quizzes and participate on polls to know where you stand.

news@ridmik.news
support@ridmik.news
© Ridmik Labs, 2018-2021