Link copied.
বজ্রপাত
cover

সিরাজগঞ্জে বজ্রপাতে দুই কৃষকের মৃত্যু

সিরাজগঞ্জে বজ্রপাতে দুই কৃষকের মৃত্যু হয়েছে। আজ মঙ্গলবার জেলার শাহজাদপুর উল্লাপাড়ায় পৃথক স্থানে বজ্রাঘাতে তাদের মৃত্যু হয়। শাহজাদপুরে খড়ের পালা দেওয়ার সময় বজ্রপাতে মো. নজরুল ইসলাম (৪৫) নামের এক কৃষকের মৃত্যু হয়। উপজেলার কায়েমপুর ইউনিয়নের সড়াতৈল এলাকায় এ ঘটনা ঘটে। নিহত নজরুল ওই এলাকার নেফাজ সরকারের ছেলে। এনিয়ে শাহজাদপুরে গত দুই সপ্তাহে বজ্রপাতে ১০ জন মারা গেছেন। অপর দিকে, উল্লাপাড়া উপজেলার কয়ড়া গ্রামের আলহাজ্ব আলীর ছেলে আতিক হাসান (৩২) নিজের জমিতে কাজ করার সময় বজ্রপাতে মারা যান। শাহজাদপুর উপজেলার নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) শাহ মোহাম্মদ শামসুজ্জোহা ও উল্লাপাড়া মডেল থানার ওসি দীপক কুমার দাস ওই দুই কৃষকের মৃত্যুর বিষয়টি নিশ্চিত করেন।

coverশীর্ষ খবর

৪ মাসে বজ্রপাতে ১৭৭ জনের মৃত্যু

২০২১ সালের মার্চ থেকে জুন মাস পর্যন্ত চার মাসে বজ্রপাতে ১৭৭ জনের প্রাণহানির ঘটনা ঘটেছে। এ সময়ের মধ্যে আহত হয়েছে ৪৭ জন। এর মধ্যে শুধু কৃষি কাজ করতে গিয়েই মৃত্যু হয়েছে ১২২ জনের। বজ্রপাত ও কাল বৈশাখী ঝড়ের মধ্যে আম কুড়াতে গিয়ে বজ্রপাতে মারা গেছে ১৫ জন। ঘরে অবস্থানকালীন বজ্রপাতে ১০ জন, নৌকায় মাছ ধরার সময় ছয় জন মারা গেছেন। মাঠে গরু আনতে মারা গেছে পাঁচ জন। মাঠে খেলা করার সময় তিন জন ও বাড়ির আঙিনায় খেলা করার সময় ছয় জনের মৃত্যু হয়েছে। এছাড়া, ভ্যান/রিকশা চালানোর সময় দু’জন এবং গাড়ির ভেতরে অবস্থানকালীন বজ্রপাতে মারা গেছেন এক জন। শুক্রবার (১১ জুন) নগরীর সেভ দ্য সোসাইটি অ্যান্ড থান্ডারস্ট্রম অ্যাওয়ারনেস ফোরামের (এসএসটিএএফ) মিলনায়তনে এক সংবাদ সম্মেলনে এ তথ্য জানানো হয়। মৃত্যুর পাশাপাশি এ বছর বজ্রপাতে আহত হয়েছে ৪৭ জন। এর মধ্যে ৪০ জন পুরুষ ও সাত জন নারী রয়েছে।

coverশীর্ষ খবর

চাঁপাইনবাবগঞ্জে বজ্রপাতে তিনজনের মৃত্যু

চাঁপাইনবাবগঞ্জের সদর ও নাচোল উপজেলায় পৃথক স্থানে বজ্রপাতে তিনজন নিহত হয়েছেন। বৃহস্পতিবার বিকেল ৫টার দিকে ঝড়-বৃষ্টির সময় বজ্রপাতে এ ঘটনা ঘটে। বজ্রপাতে নিহতরা হলেন, চাঁপাইনবাবগঞ্জ পৌর এলাকার হাটপাড়া (বটতলা) গ্রামের মৃত নজরুল ইসলামের ছোলে মেসবাউল হক মিশু (৪০), শংকরবাটি এলাকার বটতলা গ্রামের মৃত দাউদ আলীর ছেলে আব্দুর রহমান (৫৫), আব্দুর রহমানের মেয়ে ফারজানা (১২)। এছাড়াও তরিকুল ইসলাম নামে এক ব্যক্তি বজ্রপাতে গুরুতর আহত হয়েছেন। প্রত্যক্ষদর্শী শাহজাহান জানান; নিহতরা দুজন ফিল্টি পাড়ায় একটি আমের বাগান কিনে বৃহষ্পতিবার বিকালে আম পাড়তে গাছে ওঠে। আম পাড়ার সময় বজ্রপাতে হলে ঘটনাস্থলে মেসবাউল ও মিশুর মৃত্যু হয়। এদিকে নাচোল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা সেলিম রেজা জানান, ঝড়ের সময় বাড়ির পাশের বাগানে আম কুড়াতে গিয়ে ফারজানা নামক এক মেয়ের মৃত্যু হয়েছে।

coverশীর্ষ খবর

পশ্চিমবঙ্গে বজ্রপাতে ২৬ জনের মৃত্যু

ভারতের পশ্চিমবঙ্গের বিভিন্ন স্থানে সোমবার ভারী বর্ষণ ও বজ্রপাতে অন্তত ২৬ জনের মৃত্যু হয়েছে। এর মধ্যে হুগলি জেলায় ১১, মুর্শিদাবাদে ৯, বাঁকুড়ায় দুই এবং দুই মেদিনীপুরে চার জনের মৃত্যুর খবর মিলেছে। হতাহতদের পরিবারকে আর্থিক সাহায্যের ঘোষণা দিয়েছেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি। হুগলির খানাকুলে বাজ পড়ে একই পরিবারের দুই জনসহ অন্তত চার জনের মৃত্যু হয়েছে। পোলবার দাদপুরে প্রাণ গেছে তিন জনের। তারকেশ্বরেও দুই জনের মৃত্যু হয়েছে। এছাড়া, হরিপাল ও সিঙ্গুরে এক জন করে দুই জনের মৃত্যু হয়েছে। সব মিলিয়ে হুগলি জেলাতেই বজ্রাঘাতে প্রাণ হারিয়েছেন ১১ জন।

cover

রোববার দেশে বজ্রপাতে ২৮ জনের প্রাণহানি

বজ্রপাতে সারাদেশে ২৮ জনের মৃত্যু হয়েছে। এ ঘটনায় আহত হয়েছে অন্তত ছয়জন। রোববার (৬ জুন) সকাল থেকে সন্ধ্যা পর্যন্ত চট্টগ্রাম, সিরাজগঞ্জ, মানিকগঞ্জে, পটুয়াখালী, ফেনী, সাতক্ষীরা, বগুড়া, বরিশাল, চুয়াডাঙ্গা, মাদারীপুর, নাটোর, মেহেরপুর, নোয়াখালী ও শরীয়তপুরে বজ্রপাতে এ প্রাণহানির ঘটনা ঘটে। নিহতদের মধ্যে স্কুল, কলেজ শিক্ষার্থীও রয়েছেন। এছাড়া নিহতদের অধিকাংশ কৃষি মাঠে কর্মরত অবস্থায় কৃষকরা বজ্রপাতে মারা যায়।

cover

সাতক্ষীরায় বজ্রপাতে দুইজনের মৃত্যু

সাতক্ষীরায় সদর উপজেলার চৌবাড়িয়া গ্রাম ও তালা উপজেলার নগরঘাটা গ্রামে রোববার রাতে বজ্রপাতে ঘের ব্যবসায়ীসহ দুজনের মৃত্যু হয়েছে। মৃতরা হলেন- সাতক্ষীরা সদর উপজেলার চৌবাড়িয়া গ্রামের রাবেয়া খাতুন (২২) ও তালা উপজেলার নগরঘাটা গ্রামের কিশোর মণ্ডল (৩৭)। জানা যায়, সদর উপজেলার চৌবাড়িয়া গ্রামে কানফাটা আওয়াজে বজ্রের ঝলকানির মধ্যে বাড়ির বারান্দায় বসেছিলেন রাবেয়া। এ সময় বজ্রপাতে তার মৃত্যু হয়। অপরদিকে সাতক্ষীরার তালা উপজেলায় নিজের মাছের ঘেরে থাকাকালে বজ্রপাতে প্রাণ হারান কিশোর মণ্ডল। পাটকেলঘাটা থানার ওসি ওয়াহিদ মোর্শেদ ও সদর থানার ওসি দেলোয়ার হুসেন বজ্রপাতে মৃত্যুর খবর নিশ্চিত করেছেন। তারা বলেন, ময়নাতদন্ত ছাড়াই তাদের দাফনের অনুমতি দেওয়া হয়েছে।

cover

সাতক্ষীরায় বজ্রপাতে দুইজন নিহত, আহত তিন

সাতক্ষীরায় পৃথক স্থানে বজ্রপাতের ঘটনায় নারী-পুরুষসহ দুইজন নিহত হয়েছেন। এ সময় আহত হয়েছেন আরো তিনজন। আজ রবিবার সন্ধ্যার দিকে সাতক্ষীরা সদর উপজেলার ভোমরা ইউনিয়নের চৌবাড়িয়া ও তালা উপজেলার খলিশখালী ইউনিয়নের হরিণখোলা গ্রামে এই ঘটনা ঘটে। নিহতরা হলেন, হরিণখোলা গ্রামের আশুতোষ মন্ডলের ছেলে কিশোর মন্ডল (৩৮) ও চৌবাড়িয়া গ্রামের বজলুর রহমানের মেয়ে রাবেয়া খাতুন (২০)। আহতদের পরিচয় জানা যায়নি। স্থানীয়রা জানান, কিশোর মন্ডল সন্ধ্যার আগে ঘের থেকে বাড়িতে ফিরছিলেন। এ সময় ঝড় ‍বৃষ্টির সাথে বজ্রপাতে তার মৃত্যু হয়। একই সময় ওই এলাকায় অবস্থান করা আরো তিনজন আহত হয়েছেন। সাতক্ষীরা সদর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) দেলোয়ার হুসাইন ও তালা থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মককর্তা (ওসি) মেহেদি রাসেল বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।

cover

টাঙ্গাইলে বজ্রপাতে ২ জনের মৃত্যু

টাঙ্গাইলের নাগরপুরে বজ্রপাতে দুই জনের মৃত্যু হয়েছে। রবিবার বিকালে উপজেলার ভাদ্রা ও বেকড়া ইউনিয়নে পৃথক দুই স্থানে এ ঘটনা ঘটে। নিহতরা হলেন- উপজেলার ভাদ্রা ইউনিয়নের গাংবিহালী গ্রামের বক্তার খানের ছেলে আলমাছ খান (৫৫) এবং বেকড়া ইউনিয়নের বেকড়া মধ্য পাড়া গ্রামের মৃত পলান মিয়ার ছেলে সোনা মিয়া (৫৩)। স্থানীয় ইউপি সদস্য মুসলেম উদ্দিন জানায়, আলমাছ খান বিকালে গাংবিহালী চক থেকে ধানের খড় শুকাচ্ছিলেন। এসময় আকাশে বিদ্যুৎ চমকানো শুরু হলে সে বাড়ি ফিরে আসতে থাকে। বাড়ি ফেরার পথে বজ্রপাতে তার মৃত্যু হয়।

cover

বরিশালে বজ্রপাতে দিনমজুর নিহত

বরিশালের উজিরপুর উপজেলার দক্ষিন সাতলা গ্রামে বজ্রপাতে দিন মজুর নান্টু বালী (২৬) নিহত এবং সুমন খান (২৪) আহত হয়েছেন। সুমনকে আজ রবিবার সন্ধ্যা সাড়ে ৭টায শের ই বাংলা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। নিহত নান্টু ওই এলাকার ইউনুস বালীর ছেলে। প্রত্যক্ষদর্শীরা জানান, বিকেলে ৫টার দিকে আকস্মিক বজ্রপাতে নান্টু ও সুমন আহত হয়। তাদেরকে উদ্ধার করে উপজেলা হাসপাতালে নেয়া হলে নান্টুকে চিকিৎসক মৃত ঘোষণা করেন। সুমনকে মেডিকেলে প্রেরন করা হয়। তারা দুইজনই পেশায় দিনমজুর।

cover

বগুড়ায় আম কুড়াতে গিয়ে বজ্রপাতে শিশুর মৃত্যু

বগুড়ার ধুনটে ঝড়ের ভেতর আম কুড়ানোর সময় বজ্রপাতে আদিল হোসেন (৮) নামে এক শিশুর মৃত্যু হয়েছে। নিহত আদিল হোসেন উপজেলার কালেরপাড়া ইউনিয়নের নিত্তিপোতা গ্রামের আব্দুল মোমিনের ছেলে। রবিবার সন্ধ্যা ৬টার দিকে নিহতের বাড়ির আঙ্গিনায় এ ঘটনা ঘটে। একই সাথে বজ্রপাতে আরমান হোসেন (৭) নামে আরো এক শিশু আহত হয়। আরমান হোসেন একই গ্রামের মাহবুবর রহমানের ছেলে। আহত আরমানকে ধুনট উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে চিকিৎসা দেওয়া হয়েছে। ধুনট থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) কৃপা সিন্ধু বালা বলেন, বজ্রপাতে নিহত শিশুর সুরতহাল প্রতিবেদন তৈরী করা হয়েছে।

coverশীর্ষ খবর

চট্টগ্রামে বজ্রপাতে ছয়জনের মৃত্যু

চট্টগ্রামের চার উপজেলায় বজ্রপাতে ৬ জনের মৃত্যু হয়েছে। আজ রবিবার সকালে থেকে দুপুরের মধ্যে ফটিকছড়ি, মীরসরাই, সীতাকুণ্ড, বোয়ালখালীতে এসব মৃত্যুর ঘটনা ঘটেছে। আহত হয়েছেন আরও ৩ জন। এর মধ্যে ফটিকছড়িতে দুই নারীসহ ৩ জন, মীরসরাইয়ে ১ জন, সীতাকুণ্ডে ১ জন, বোয়ালখালীতে ১ জন মারা যায়। স্থানীয় সূত্রে জানা যায়, ফটিকছড়ির শফি সওদাগর, লাকি দাশ (৩৮) ও ভানু শীল (৪০)। মিরসরাইয়ে মারা যান মোঃ সাজ্জাদ হোসেন (১৬) নামে এক স্কুল ছাত্র। সীতাকুণ্ডে বজ্রপাতে মোহাম্মদ এসকান্দর হোসেন (৫০) নামের এক বৃদ্ধ নিহত হয়েছে। বোয়ালখালীতে মারা যান জাহাঙ্গীর আলম নামে এক দিনমজুর।

cover

রংপুরে বজ্রপাতে কৃষকের মৃত্যু

বজ্রপাতরংপুর
১২ দিন আগে

রংপুরের গঙ্গাচড়ায় বজ্রপাতে আমিনুর ইসলাম (৩৭) নামে এক দরিদ্র কৃষকের মৃত্যু হয়েছে। ঘটনাটি ঘটেছে আজ রবিবার বিকেল ৫টার দিকে উপজেলার কোলকোন্দ ইউনিয়নের চর মটুকপুর গ্রামে। আমিনুর ওই গ্রামের মফিজ উদ্দিনের ছেলে। স্থানীয়রা জানান, রবিবার সকালে পার্শ্ববর্তী পাট ক্ষেতে কাজ করার জন্য যায় আমিনুল ইসলাম। ক্ষেতে কাজ করা অবস্থায় বিকেল ৫টার দিকে বৃষ্টি শুরু হলে সে পাট ক্ষেত থেকে বাড়ির দিকে যেতে থাকে। এক পর্যায়ে পথিমধ্যে আকস্মিক বজ্রপাতে সে মারা যায়। বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন কোলকোন্দ ইউপি সচিব এরশাদ আলম শাহীন।


Ridmik News is the most used news app in Bangladesh. Always stay updated with our instant news and notification. Challenge yourself with our curated quizzes and participate on polls to know where you stand.

news@ridmik.news
support@ridmik.news
© Ridmik Labs, 2018-2021