Link copied.
রোহিঙ্গা
cover

ভাসানচর থেকে পালাতে গিয়ে ৫ দালালসহ ২৩ রোহিঙ্গা আটক

নোয়াখালীর হাতিয়ার ভাসানচর আশ্রয়ণ প্রকল্প থেকে পালাতে গিয়ে ৫ দালালসহ ২৩ রোহিঙ্গাকে আটক করেছে আইন-শৃঙ্খলা বাহিনীর সদস্যরা। শুক্রবার (২৬ নভেম্বর) সকাল থেকে বিকেল পর্যন্ত তাদের আটক করা হয়। ভাসান চর থানা পুলিশ জানায়, আটক ব্যক্তিদের মধ্যে পাঁচজন রোহিঙ্গা পুরুষ দালাল, চারজন পুরুষ, ছয়জন নারী ও আট শিশু রয়েছেন। গতকাল শুক্রবার সন্ধ্যায় তাদের ভাসানচর থানায় সোপর্দ করা হয়। পুলিশ সূত্রে আরো জানা যায়, শুক্রবার সকাল থেকে বিকাল পর্যন্ত ভাসানচর আশ্রয়ণ ক্যাম্পের বিভিন্ন স্থানে এপিবিএন সিভিল দল ও কোস্টগার্ড। যৌথ অভিযান চালিয়ে ৫ দালাল ও ১৮ জন রোহিঙ্গাকে আটক করা হয়। কোস্টগার্ডের ভাসানচর ক্যাম্পের কমান্ডার খলিলুর রহমান জানান, আটক ৫ রোহিঙ্গা দালালকে ভাসানচর থানায় ও ১৮ রোহিঙ্গা নারী, শিশু ও পুরুষকে ক্যাম্পের প্রশাসন ইনচার্জের কাছে হস্তান্তর করা হয়েছে।

cover

রোহিঙ্গাদের ভেতর থেকে জঙ্গির উত্থান হতে পারে: স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী

স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আসাদুজ্জামান খাঁন কামাল বলেছেন, দেশে মিয়ানমার থেকে আসা ১১ লাখ রোহিঙ্গার ভেতর থেকেও জঙ্গির উত্থান হয়ে যেতে পারে। আজ শুক্রবার (২৬ নভেম্বর) বিকেলে রাজধানীর শিল্পকলা একাডেমিতে অনুষ্ঠিত 'মুম্বাইয়ে সন্ত্রাসী হামলার ১৩তম বার্ষিকী' উপলক্ষে আয়োজিত আলোকচিত্রের উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি একথা বলেন। স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী বলেন, অতি সম্প্রতি আপনারা দেখেছেন, মিয়ানমার থেকে ১১ লাখ বাস্তুচ্যুত রোহিঙ্গা জোর করে আমাদের দেশে, আমাদেরকে দিয়ে দেওয়া হয়েছে। আমরা এটুকু বলতে চাই, এই যে ১১ লাখ, এখান থেকেও জঙ্গির উত্থান হতে পারে। তারা ইজি ইন পে হতে পারে টেরোরিস্টদের, যেটা আমরা সবসময় বলে আসি। কাজেই এই প্রবলেমটা যদি শীঘ্রয় শেষ না হয়, তাহলে হয়তো আমাদের নতুন মাত্রার জঙ্গির উত্থান হয়েও যেতে পারে।

cover

ভাসানচরের পথে ৩৭৯ রোহিঙ্গা

চট্টগ্রাম থেকে ভাসানচরের পথে রওনা হয়েছেন ৩৭৯ জন রোহিঙ্গা। আজ বৃহস্পতিবার (২৫ নবেম্বর) বেলা ১২টায় চট্টগ্রাম বোট ক্লাব থেকে নৌবাহিনীর জাহাজ পেঙ্গুইন তাদের নিয়ে ভাসানচরের উদ্দেশে রওনা হয়েছে। রোহিঙ্গাদের চট্টগ্রাম থেকে ভাসানচরে নিয়ে যাওয়ার সঙ্গে সংশ্লিষ্টরা এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন। এর আগে ভাসানচরে নেওয়ার উদ্দেশে গতকাল বুধবার (২৪ নবেম্বর) রোহিঙ্গাদের কক্সবাজারের উখিয়া থেকে চট্টগ্রামে আনা হয়। রাতে তারা চট্টগ্রামের বিএফ শাহিন কলেজ মাঠের অস্থায়ী তাঁবুতে অবস্থান করেন। এর আগে ছয় দফায় প্রায় ১৮ হাজার ৬০০ রোহিঙ্গাকে ভাসানচরে নিয়ে যাওয়া হয়। মাঝখানে প্রায় আট মাস বন্ধ থাকার পর আজ থেকে আবার রোহিঙ্গাদের ভাসানচরে নিয়ে যাওয়া হচ্ছে।

coverশীর্ষ খবর

আরও ২৫৭ জন রোহিঙ্গা নিয়ে ভাসানচরের পথে ৭ বাস

কক্সবাজারের শরণার্থী শিবিরগুলো থেকে সপ্তম দফায় (প্রথম দল) ভাসানচরের উদ্দেশে যাত্রা শুরু করেছেন রোহিঙ্গারা। আজ বুধবার (২৪ নভেম্বর) সকাল ১১টার পর উখিয়া ডিগ্রি কলেজের মাঠ থেকে চট্টগ্রামের পথে তাদের নিয়ে ৭টি বাস রওনা দিয়েছে। সেখানে ২৫৭ জন রোহিঙ্গা রয়েছেন জানা গেছে। আজ আরও দল যাওয়ার কথা রয়েছে। জাতিসংঘের শরণার্থী সংস্থা ও সরকারের মধ্যে ভাসানচরে শরণার্থী ব্যবস্থাপনা বিষয়ক সমঝোতা স্মারক (এমওইউ) হওয়ার পর প্রথমবারের মতো সেখানে রোহিঙ্গাদের নেওয়ার প্রক্রিয়া শুরু হয়েছে। এ দফায় প্রায় দেড় হাজারের বেশি রোহিঙ্গা ভাসানচরে যাওয়ার কথা রয়েছে।

coverশীর্ষ খবর

রোহিঙ্গাদের ফেরত নিতে কথা রাখেনি মিয়ানমার: পররাষ্ট্রমন্ত্রী

রোহিঙ্গা প্রত্যাবর্তন নিয়ে পররাষ্ট্রমন্ত্রী এ কে আব্দুল মোমেন বলেছেন, পৃথিবীর সব দেশ একবাক্যে বলেছে রোহিঙ্গারা যাতে তাদের দেশে ফেরত যায়। ইতিমধ্যে রেজুলেশন পাশ হয়েছে, আমরা যেটা এতোদিন ধরে প্রচেষ্টা চালিয়েছিলাম। পৃথিবীর সব দেশ একবাক্যে স্বীকার করেছে যে, রোহিঙ্গারা যেন তাদের দেশে ফেরত যায়। আজ শনিবার (২০ নভেম্বর) দুপুরে গোপালগঞ্জের টুঙ্গিপাড়ায় সিলেট মহানগর আওয়ামী লীগের পক্ষে বঙ্গবন্ধুর সামাধিতে শ্রদ্ধা নিবেদন শেষে সাংবাদিকদের প্রশ্নের জবাবে তিনি এসব কথা বলেন। পররাষ্ট্রমন্ত্রী বলেন, আমরা বিশ্বাস করি এতে করে রোহিঙ্গাদের ফেরত নিতে মিয়ানমারের ওপর চাপ বাড়বে। মিয়ানমার ইতোপূর্বে আমাদেরকে বলেছে যে, তারা রোহিঙ্গাদের তাদের দেশে ফিরিয়ে নেবে এবং লোকগুলো যাতে তাদের দেশে ফেরত যায় সেজন্য তারা পরিবেশও তৈরি করবে। কিন্তু আজকে ৫ম বছর অতিবাহিত হলেও তারা তাদের কথা রাখেননি।

cover

চীন-রাশিয়াও রোহিঙ্গা সমস্যার সমাধান চায়: পররাষ্ট্রমন্ত্রী

রোহিঙ্গাসরকার
১০ দিন আগে

চীন ও রাশিয়াও রোহিঙ্গা সমস্যার সমাধান চায় বলে জানিয়েছেন পররাষ্ট্রমন্ত্রী ড. এ কে আব্দুল মোমেন। বৃহস্পতিবার (১৮ নভেম্বর) বাংলাদেশ ইনস্টিটিউট অব ইন্টারন্যাশনাল অ্যান্ড স্ট্র্যাটেজিক স্টাডিজ (বিআইআইএসএস) আয়োজিত এক অনুষ্ঠান শেষে সাংবাদিকদের মুখোমুখি হয়ে এ কথা বলেন তিনি। পররাষ্ট্রমন্ত্রী বলেন, জাতিসংঘে এই প্রথমবারের মতো সর্বসম্মতিক্রমে রোহিঙ্গা রেজুলেশন গৃহীত হয়েছে। রাশিয়া-চীন আগে রোহিঙ্গা ইস্যুতে বাধা দিতো। তবে তারা এবার চুপ ছিল। তারাও এই সমস্যা দূর করতে চায়। রাশিয়ার সঙ্গে আমার আলাপ হয়েছে, চীনের সঙ্গেও আলাপ হয়েছে। সব দেশই রোহিঙ্গা ইস্যুর শান্তিপূর্ণ সমাধান চায়। ড. মোমেন বলেন, জাতিসংঘে প্রথমবারের মতো সর্বসম্মতিক্রমে রোহিঙ্গা রেজুলেশন গৃহীত হয়েছে। এটির রাজনৈতিক মূল্য রয়েছে। এই সিদ্ধান্তের ফলে রোহিঙ্গা ফেরাতে মিয়ানমারের ওপর চাপ সৃষ্টি হবে। এটা আমাদের জন্য একটি বিরাট সুখবর।

cover

জাতিসংঘে সর্বসম্মতিক্রমে গৃহীত হলো রোহিঙ্গা রেজুলেশন

জাতিসংঘে প্রথমবারের মতো সর্বসম্মতিক্রমে গৃহীত হলো রোহিঙ্গা রেজুলেশন। আজ বৃহস্পতিবার (১৮ নভেম্বর) জাতিসংঘে ‘মিয়ানমারের রোহিঙ্গা মুসলিমসহ অন্যান্য সংখ্যালঘু সম্প্রদায়ের মানবাধিকার পরিস্থিতি’ শীর্ষক রেজুলেশনটি গ্রহণকালে প্রদত্ত বক্তৃতায় জাতিসংঘে নিযুক্ত বাংলাদেশের স্থায়ী প্রতিনিধি রাষ্ট্রদূত রাবাব ফাতিমা বলেন, এই রেজুলেশন রোহিঙ্গা সঙ্কট সমাধানে আন্তর্জাতিক সম্প্রদায়ের দৃঢ় প্রতিশ্রুতিরই প্রতিফলন। একটি শক্তিশালী ম্যান্ডেট নিয়ে এবারের রেজুলেশন গৃহীত হলো যা রোহিঙ্গাদের মনে নতুন আশার সঞ্চার করবে যে জন্য তারা পথ চেয়ে বসে আছে।। রেজুলেশনটি যৌথভাবে উত্থাপন করে ওআইসি এবং ইউরোপীয় ইউনিয়ন। বাস্তুচ্যুত রোহিঙ্গাদের আশ্রয় ও মানবিক সহায়তা প্রদান এবং জাতীয় কোভিড-১৯ ভ্যাকসিন কর্মসূচিতে তাদেরকে অন্তর্ভুক্ত করার মাধ্যমে বাংলাদেশ যে উদারতা ও মানবিকতা প্রদর্শন করেছে, রেজুলেশনটিতে তার ভূয়সী প্রশংসা করা হয়। এবারের রেজুলেশনটিতে ১০৭টি দেশ সহ-পৃষ্ঠপোষকতা প্রদান করেছে যে সংখ্যা ২০১৭ সাল থেকে এ পর্যন্ত সর্বোচ্চ।

cover

মুহিবুল্লাহ হত্যাকাণ্ড: আরও একজনের স্বীকারোক্তি

রোহিঙ্গাদের শীর্ষ নেতা মুহিবুল্লাহ হত্যা মামলায় গ্রেফতার হামিদ হোসাইন (৩৫) নামের আরও এক আসামি আদালতে স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দি দিয়েছে। এ নিয়ে মামলাটিতে গ্রেফতার ১২ জনের মধ্যে তিন আসামি স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দি নেওয়া হয়েছে। মামলার তদন্তকারী কর্মকর্তা ও উখিয়া থানার পরিদর্শক গাজী সালাহউদ্দিন জানান, রোববার বিকালে কক্সবাজারের জ্যৈষ্ঠ বিচারিক হাকিম মো. হেলাল উদ্দিনের আদালতে গ্রেফতার আসামি স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দি প্রদান করে। গ্রেফতার আসামি হামিদ হোসাইন (৩৫) উখিয়ার ১-ইস্ট লম্বাশিয়া রোহিঙ্গা ক্যাম্পের জি-১২ ব্লকের শহর মুল্লকের ছেলে। এর আগে শনিবার সন্ধ্যায় উখিয়ার ১-ইস্ট লম্বাশিয়া রোহিঙ্গা ক্যাম্প এলাকা থেকে রোহিঙ্গা নেতা মুহিবুল্লাহ হত্যা মামলায় জড়িত থাকার অভিযোগে হামিদ হোসাইনকে গ্রেফতার করা হয় বলে জানান পরিদর্শক (তদন্ত)।

cover

রোহিঙ্গাদের ফিরে যাওয়া বিষয়ে চাপ দিয়ে যাচ্ছে ইইউ

'রোহিঙ্গাদের মিয়ানমারে ফিরে যাওয়ার বিষয়ে ইউরোপীয় ইউনিয়ন চাপ সৃষ্টি করে যাচ্ছে। তারা নিরাপদে ও স্বেচ্ছায় নিজ দেশে ফিরে যাবে- এটাই আশা করে ইউ।' আজ সোমবার রাজধানীর হোটেল ইন্টারকন্টিনেন্টালে আয়োজিত 'ডিক্যাব টক' অনুষ্ঠানে এসব কথা বলেন ঢাকায় ইউরোপীয় ইউনিয়নের (ইইউ) নতুন রাষ্ট্রদূত চার্লস হোয়াইটলি। চার্লস হোয়াইটলি আরো বলেন, 'মিয়ানমারে রোহিঙ্গা ইস্যুতে ইইউ কিছু নিষেধাজ্ঞা দিয়েছে।' তিনি বলেন, 'মিয়ানমার নিষেধাজ্ঞা দিলেও সেখানে মানবাধিকার রক্ষায় কাজ করে যাচ্ছে ইইউ। মিয়ানমারে আমরা যদি কাজ না করি তবে অন্য কেউ এসে সে জায়গা দখল করবে।' ডিজিটাল নিরাপত্তা আইন নিয়ে এক প্রশ্নের জবাবে রাষ্ট্রদূত বলেন, 'সরকারের সঙ্গে এনিয়ে ইইউ খোলামেলা কথা বলে যাচ্ছে।'

cover

রোহিঙ্গা ইস্যুতে বাংলাদেশের পাশে থাকবে ফ্রান্স: পররাষ্ট্রমন্ত্রী

রোহিঙ্গাসরকার
১৭ দিন আগে

পররাষ্ট্রমন্ত্রী আব্দুল মোমেন বলেছেন, রোহিঙ্গা সংকটের স্থায়ী সমাধানের জন্য ‘সিরিয়াসলি’ বাংলাদেশের পাশে থাকবে বলে আশ্বস্ত করেছে ফ্রান্স। প্যারিস সফররত প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার সঙ্গে ফ্রান্স প্রেসিডেন্ট ইমানুয়েল ম্যাক্রোঁ ও দেশটির প্রধানমন্ত্রী জিন ক্যাসট্যাক্সসহ ফ্রান্সের শীর্ষ কয়েকজনসহ উচ্চ পর্যায়ের নেতাদের সঙ্গে বৈঠক বিষয়ে ব্রিফিংয়ে এ কথা জানান পররাষ্ট্রমন্ত্রী। রোহিঙ্গা ইস্যুতে বাংলাদেশের পাশে থাকতে ফ্রান্সের আগ্রহের কথা জানিয়ে আব্দুল মোমেন বলেন, তারা (ফ্রান্স) বলেছে ‘সিরিয়াসলি’ আমাদের সঙ্গে থাকবে। এই সংকটের যাতে সল্যুয়েশনটা হয় সেজন্য জাতিংসংঘের স্থায়ী সদস্য হিসেবেও ভূমিকা রাখবে বলে আশ্বাস দিয়েছে ফ্রান্স। সফররত প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার সঙ্গে ফ্রান্স প্রেসিডেন্ট এবং প্রধানমন্ত্রীসহ বিভিন্ন নেতাদের সঙ্গে আলোচনায় রোহিঙ্গা ইস্যুটি গুরুত্ব পেয়েছে বলে জানান মন্ত্রী। এ কে আব্দুল মোমেন বলেন, রোহিঙ্গা ইস্যুতে ফ্রান্স যথেষ্ট আগ্রহ দেখিয়েছে এবং ফ্রান্সও বিশ্বাস করে রোহিঙ্গাদের ফিরে যাওয়া উচিত। রোহিঙ্গাদের ভবিষ্যৎ নির্ভর করবে তারা তাদের স্বদেশে ফিরে যাওয়ার জন্য।

cover

পাহাড়ে অস্ত্রের কারখানা, আটক ৩

কক্সবাজারের উখিয়ায় রোহিঙ্গা ক্যাম্প সংলগ্ন পাহাড়ে ‘অস্ত্র তৈরির কারখানার’ সন্ধান পেয়েছে র‌্যাব। র‌্যাব-১৫ কক্সবাজার ব্যাটালিয়ানের উপ-অধিনায়ক মেজর মেহেদী হাসান জানান, সোমবার ভোররাতে কুতুপালং এক্সটেনশন-৪ রোহিঙ্গা ক্যাম্প সংলগ্ন গহীন পাহাড়ে ওই কারখানায় অভিযান চালিয়ে ১০টি আগ্নেয়াস্ত্র এবং অস্ত্র তৈরির সরঞ্জামসহ তিনজনকে আটক করেছেন তারা। মেজর মেহেদী বলেন, “রোহিঙ্গা ক্যাম্প সংলগ্ন ওই পাহাড়ে সংঘবদ্ধ একটি চক্র অস্ত্র কারখানা গড়ে তুলে দীর্ঘদিন ধরে অস্ত্র তৈরি করে আসছিল। সেখানে তৈরি অস্ত্র রোহিঙ্গা সন্ত্রাসীদের কাছে সরবরাহ করা হত। এ খবর পেয়েই ভোররাতে সেখানে অভিযান চালায় আমাদের একটি দল।” এসময় কয়েকজন পালিয়ে যেতে পারলেও র‌্যাব সদস্যরা তিনজনকে আটক করে বলে জানান মেজর মেহেদী। তিনি বলেন, ওই কারাখানা থেকে ১০টি বন্দুক এবং অস্ত্র তৈরির বিভিন্ন সরঞ্জামা উদ্ধার করা হয়। তাদের বিরুদ্ধে উখিয়া থানায় মামলা করার প্রস্তুতি চলছে বলে জানান মেজর মেহেদী হাসান।

cover

রোহিঙ্গা প্রত্যাবাসনে বাংলাদেশকে সাহায্য করতে আগ্রহী অস্ট্রেলিয়া

রোহিঙ্গাসরকার
২৪ দিন আগে

জলবায়ু স্থিতিস্থাপকতা সৃষ্টি ও রোহিঙ্গা প্রত্যাবাসনে অস্ট্রেলিয়া বাংলাদেশকে সাহায্য করতে আগ্রহ প্রকাশ করেছে। অস্ট্রেলিয়ার প্রধানমন্ত্রী স্কট মরিসন মঙ্গলবার (৩ নভেম্বর) কপ-২৬-এর সাইডলাইনে বাংলাদেশের প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার সঙ্গে দ্বিপক্ষীয় বৈঠকে এ আগ্রহ প্রকাশ করেন। প্রধানমন্ত্রীর প্রেস সচিব ইহসানুল করিম বলেন, 'অস্ট্রেলিয়ার প্রধানমন্ত্রীর আমন্ত্রণে এ দ্বিপক্ষীয় বৈঠক অনুষ্ঠিত হয়।' তিনি আরো বলেন, 'উভয় নেতা দু'দেশের মধ্যে সহযোগিতার বিষয়ে আলোচনা করেন। তারা বিশেষভাবে জলবায়ু সহযোগিতা ও রোহিঙ্গা প্রত্যাবাসনের ওপর গুরুত্বারোপ করেন।' অস্ট্রেলিয়ার প্রধানমন্ত্রী জানান, তার দেশ জলবায়ু স্থিতিস্থাপকতা সৃষ্টি ও রোহিঙ্গা প্রত্যাবাসনে বাংলাদেশকে বিশেষভাবে সহায়তা করবে। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বলেন, 'বাংলাদেশ জলবায়ু পরিবর্তনজনিত ক্ষতিগ্রস্ত দেশ। অস্ট্রেলিয়ারও দাবানল, বন্যাসহ জলবায়ু পরিবর্তনজনিত চরম ক্ষতির অভিজ্ঞতা রয়েছে। তাই উভয় দেশ জলবায়ু পরিবর্তনজনিত প্রভাবের বিরুদ্ধে স্থিতিস্থাপকতা গঠনে ঘনিষ্ঠভাবে কাজ করতে পারে।'

cover

রোহিঙ্গা ক্যাম্পে ৬ খুনের স্বীকারোক্তি দিলো আরাফাত

কক্সবাজারের উখিয়ার বালুখালী ১৮ নম্বর ক্যাম্পের মাদরাসায় হামলা চালিয়ে মাদরাসার শিক্ষক ও ছাত্রসহ ছয় রোহিঙ্গা খুনের মামলায় আদালতে স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দি দিয়েছেন আরাফাত উল্লাহ (২২) নামে এক রোহিঙ্গা। বুধবার (৩ নভেম্বর) বিকেলে কক্সবাজার সিনিয়র জুডিসিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট জেরিন সোলতানার আদালতে ১৬৪ ধারায় সন্দেহভাজন হিসেবে গ্রেফতার এ আসামির জবানবন্দি রেকর্ড করা হয় বলে জানিয়েছেন ১৪ আর্মড পুলিশ ব্যাটালিয়নের অধিনায়ক মো. নাইমুল হক। আরাফাত উল্লাহ মধুরছড়া ৪ নম্বর ক্যাম্পের জি/২ ব্লকের মৃত আব্দুর রহিমের ছেলে। অধিনায়ক নাইমুল হক জানান, গোপন সংবাদের ভিত্তিতে বুধবার ভোরে তাকে মধুরছড়া ৪ নম্বর রোহিঙ্গা শিবিরের জি/২ ব্লক থেকে তাকে এ হত্যা মামলার সন্দেহভাজন আসামি হিসেবে গ্রেফতার করা হয়।

cover

৮ রোহিঙ্গা শিবির থেকে এক মাসে ৬০ আসামি গ্রেফতার

রোহিঙ্গা শিবিরে আইন-শৃঙ্খলা রক্ষায় নিয়োজিত ১৬ আর্মড পুলিশ ব্যাটালিয়নের (এপিবিএন) কর্ম এলাকার ৮টি রোহিঙ্গা শিবিরে বিশেষ অভিযান চালিয়ে এক মাসে ৬০ জন আসামিকে গ্রেফতার করা হয়েছে। এ সময় বিপুল পরিমাণ ইয়াবা ও অস্ত্র উদ্ধার করা হয়। আজ বুধবার এপিবিএন এর পক্ষ থেকে বিষয়টি নিশ্চিত করা হয়। ১৬ এপিবিএনের অধিনায়ক পুলিশ সুপার তারিকুল ইসলাম তারিক জানান, অক্টোবর মাসে হোয়াইক্যং চাকমারকুল উনচিপ্রাং, শামলাপুর লেদা আলিখালি, শালবাগান, জাদিমুরা ও নয়াপাড়াসহ ১৬ এপিবিএন এর অধীন ৮টি রোহিঙ্গা ক্যাম্পে বিশেষ অভিযান চালানো হয়। এ সময় রোহিঙ্গা সন্ত্রাসী ও মাদক চোরাচালানসহ বিভিন্ন মামলায় পরোয়ানাভুক্ত ৬০ জন আসামিকে গ্রেফতার করা হয়। তিনি আরও জানান, এসব অভিযানে ২ হাজার ২০৪ পিস ইয়াবা, দেশীয় ৩২ লিটার চোলাই মদ, দেশীয় তৈরি এলজি পাঁচটি, একনলা বন্দুক চারটি, রামদা ও কিরিজ ১৪টি উদ্ধার করা হয়। এ ঘটনায় থানায় ৩৪টি মামলা দায়ের করা হয়।

coverশীর্ষ খবর

রোহিঙ্গা শিবিরে আরসা নেতার লাশ উদ্ধার

কক্সবাজারের টেকনাফ হোয়াইক্যংয়ের রোহিঙ্গা শিবিরে কথিত আরাকান রোহিঙ্গা স্যালভেশন আর্মির (আরসা) সেকেন্ড ইন কমান্ড হিসেবে পরিচিত মোহাম্মদ হাসিমের লাশ পাওয়া গেছে। মঙ্গলবার রাত ১১টার দিকে বিষয়টি যুগান্তরকে নিশ্চিত করেছেন হোয়াইক্যং পুলিশ ফাঁড়ির এসআই মাহাবুবুর রহমান। তবে কীভাবে ওই রোহিঙ্গা নেতার মৃত্যু হয়েছে সে বিষয়ে পুলিশের পক্ষ থেকে স্পষ্ট কোনো বক্তব্য পাওয়া যায়নি। টেকনাফ থানার ওসি হাফিজুর রহমান চৌধুরী জানান, লাশ উদ্ধারে ঘটনাস্থলে পুলিশ পাঠানো হয়েছে। গত ২৯ সেপ্টেম্বর রাতে উখিয়ায় লম্বাশিয়া রোহিঙ্গা ক্যাম্পে আরাকান রোহিঙ্গা সোসাইটি ফর পিস অ্যান্ড হিউম্যান রাইটসের চেয়ারম্যান মুহিবুল্লাহকে তার কার্যালয়ে গুলি চালিয়ে হত্যা করা হয়। এরপর গত ২৩ অক্টোবর উখিয়ার পালংখালী ইউনিয়নের ১৮ নম্বর ময়নারঘোনা রোহিঙ্গা ক্যাম্পের একটি মাদ্রাসায় গুলি চালিয়ে হত্যা করা হয় ছয়জনকে।


Ridmik News is the most used news app in Bangladesh. Always stay updated with our instant news and notification. Challenge yourself with our curated quizzes and participate on polls to know where you stand.

news@ridmik.news
support@ridmik.news
© Ridmik Labs, 2018-2021