বগুড়া | Ridmik News
বগুড়া
বগুড়ায় আম কুড়াতে গিয়ে দুই ভাইয়ের মৃত্যু
বগুড়ার গাবতলীতে আম কুড়াতে গিয়ে পুকুরের পানিতে পড়ে দুই শিশুর মৃত্যু হয়েছে। মঙ্গলবার (১৭ মে) সন্ধ্যা ৭টার দিকে উপজেলার দক্ষিনপাড়া ইউনিয়নের পাড়াবাইশা গ্রামের একটি পুকুর থেকে তাদের মরদেহ উদ্ধার করা হয়। মৃত শিশুরা হলো: গাবতলী উপজেলার দক্ষিনপাড়া ইউনিয়নের পাড়াবাইশা গ্রামের মেহেদী হাসানের ছেলে মিরাজুল ইসলাম (৬) ও মিজানুর রহমানের মেয়ে আয়শা খাতুন (৬)। মেহেদী হাসান ও মিজানুর রহমান উভয়েই সম্পর্কে চাচাত ভাই।স্থানীয়রা জানায়, মঙ্গলবার সন্ধ্যার আগে ঝড়ো বাতাস শুরু হলে দুই শিশু আম কুড়ানোর উদ্দেশ্যে বাড়ি থেকে বের হয়। দীর্ঘ সময়েও তারা ফিরে না আসলে পরিবারের লোকজন খোঁজাখুঁজি করতে থাকে। সন্ধ্যার ৭টার দিকে গ্রামের একটি আমগাছ সংলগ্ন পুকুরের পানিতে ভাসমান অবস্থায় তাদের মরদেহ পাওয়া যায়। গাবতলী মডেল থানা পুলিশের পরিদর্শক (তদন্ত) জামিরুল ইসলাম ঘটনার সত‌্যতা নি‌শ্চিত ক‌রে জানান, আম কুড়া‌তে গি‌য়ে তারা পা‌নি‌তে প‌ড়ে গি‌য়ে থাক‌তে পা‌রে। কোন অ‌ভি‌যোগ না থাকায় লাশ দু‌টো পরিবা‌রের কা‌ছে হস্তান্তর করা হ‌য়ে‌ছে। এরপ‌রেও আমরা গুরুত্ব দি‌য়ে তদন্ত কর‌ছি। এ ঘটনায় থানায় এক‌টি ইউ‌ডি মামলা দা‌য়ের হ‌য়ে‌ছে।
বগুড়ায় সড়ক দুর্ঘটনায় ২ জন নিহত
বগুড়ার শেরপুরে ট্রাকচাপায় দুই জন নিহত হয়েছেন। শুক্রবার (১৩ মে) ভোররাত ৪টার দিকে উপজেলার চান্দাইকোনা-ভবানীপুর আঞ্চলিক সড়কের জামনগর এলাকায় এ দুর্ঘটনা ঘটে। নিহতরা হলেনঃ শেরপুরের ভবানীপুর গ্রামের মৃত নওশের আলীর ছেলে ফজর আলী খাজা (৪৫) ও মোটর সাইকেল চালক শেরপুর উপজেলার সুঘাট ইউনিয়নের মধ্যভাগ গ্রামের শরত আলীর ছেলে বেলাল হোসেন (৫০)। স্থানীয়রা জানান, ফজর আলী চান্দাইকোনা থেকে ভাড়ায় চালিত মোটরসাইকেল যোগে বাড়ি ফিরছিলেন। পথিমধ্যে জামনগর এলাকায় পৌঁছিলে দ্রুতগামী একটি ট্রাক মোটরসাইকেলটিকে চাপা দিয়ে পালিয়ে যায়। এতে ঘটনাস্থলেই ফজর আলী ও চালক বেলাল নিহত হন। শেরপুর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা শহিদুর ইসলাম বলেন, পুলিশ ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছে। দুর্ঘটনায় নিহতদের লাশ স্বজনদের কাছে হস্তান্তর করা হয়েছে।
স্কুলছাত্রীকে ধর্ষণের পর ভিডিও ধারণ, প্রভাষক গ্রেফতার
বগুড়ার ধুনটে স্কুলছাত্রীকে ধর্ষণ ও মুঠোফোনে ওই ধর্ষণের দৃশ্য ভিডিও ধারণ করে ইন্টারনেটে ছড়িয়ে দেয়ার মামলায় মুরাদুজ্জামান মকুল (৪৮) নামে এক প্রভাষককে গ্রেফতার করেছে পুলিশ। মুরাদুজ্জামান উপজেলার শৈলমারি গ্রামের মতিউর রহমানের ছেলে এবং জালশুকা হাবিবর রহমান ডিগ্রী কলেজের ইসলামের ইতিহাস ও সংস্কৃতি বিষয়ের প্রভাষক। শুক্রবার (১৩ মে) সকালে ধুনট থানা থেকে আদালতের মাধ্যমে মুরাদুজ্জামান মকুলকে বগুড়া জেলা কারাগারে পাঠানো হয়েছে। এর আগে, বৃহস্পতিবার সন্ধ্যায় ধুনট শহর এলাকা থেকে তাকে গ্রেফতার করা হয়। ধুনট থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) কৃপা সিন্ধু বালা বলেন, প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে ছাত্রীকে ধর্ষণ ও ওই ধর্ষণের ঘটনা ভিডিও ধারণের বিষয়টি স্বীকার করেছে মুরাদুজ্জামান। ভিকটিমের শারীরিক পরীক্ষার জন্য বগুড়া শহীদ জিয়াউর রহমান মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে। এছাড়া বগুড়া আদালতে ভিকটিমের জবানবন্দী রেকর্ড করা হবে।
মহাস্থানে সন্নাসীদের মিলনমেলার নামে গাঁজার উৎসব
বগুড়ার ঐতিহাসিক মহাস্থানগড়ে দেশ-বিদেশের সাধু সন্নাসীদের মিলনমেলা শুরু হয়েছে আজ।  বৃহস্পতিবার (১২ মে) প্রায় আড়াই হাজার বছরের প্রাচীন সভ্যতার পীঠস্থান পুণ্ড্রবর্ধনের রাজধানী মহাস্থান গড়ে প্রতি বছর বৈশাখ মাসের শেষ বৃহস্পতিবার এই উৎসব পালন করা হ‌য়। সাধু-সন্নাসীদের মিলনমেলা বলা হলেও এটি গাঁজা উৎসব নামেই বেশি পরিচিত। গত বছ‌র প্রাণঘা‌তি ক‌রোনার কার‌ণে এ মেলা তেমন জ‌মে‌নি। ইতোমধ্যে সারাদেশ থেকে আসা গাঁজা সেবনকারীদের আনাগোনা শুরু হয়েছে। রাত যতো গভীর হবে তাদের এসব অনৈতিক কর্মকাণ্ড ততো বেড়ে যাবে। গাঁজা সেবনকারীদের ছবি সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে দিয়ে এর প্রতিবাদ জানাতে দেখা যাচ্ছে নেটিজেনদের। শাহ সুলতান বলখী(রহঃ) এর মাজার প্রাঙ্গণ বসেছে এ মেলা। চলবে কয়েকদিন।কর্তব্যরত পুলিশ প্রশাসন এসব দম‌নের সর্বত্মক চেষ্টা অব্যাহত রে‌খে‌ছে বলে জানিয়েছে। পূণ্যভূমি মহাস্থানকে পবিত্র রাখতে প্রশাসনকে আ‌রেও কঠোর হওয়ার অনুরোধ জানি‌য়ে‌ছে স‌চেতনমহল।
বগুড়ার সাবেক সাংসদের বিরুদ্ধে গ্রেফতারি পরোয়ানা
বগুড়ার সংরক্ষিত আসনের সাবেক সংসদ সদস্য নূর আফরোজ বেগম জ্যোতির বিরুদ্ধে গ্রেফতারি পরোয়ানা জারি করেছেন আদালত। জ্ঞাত আয় বহির্ভূত সম্পদ অর্জনের দায়ে দুর্নীতি দমন কমিশনের করা মামলায় গতকাল বুধবার (১১ মে) বগুড়ার বিশেষ জজ আদালতের বিচারক এমরান হোসেন চৌধুরী এ আদেশ দেন। বৃহস্পতিবার দুপুরে দুদক বগুড়ার আইনজীবী আবুল কালাম আজাদ এ তথ্য নিশ্চিত করে জানান, বুধবার মামলার যুক্তিতর্কের দিন ধার্য ছিল। এসময় নূর আফরোজ বেগমের আইনজীবী সময় প্রার্থনা করলে আদালত সময় আবেদন না মঞ্জুর করে তার বিরুদ্ধে গ্রেফতারি পরোয়ানা জারি করেন। তার বিরুদ্ধে দায়ের করা অভিযোগপত্রে উল্লেখ করা হয়, নূর আফরোজ ২৮ লাখ ১৭ হাজার ১৮৪ টাকার সম্পদের কথা গোপন করে মিথ্যা তথ্য প্রদান করেছেন এবং ৫৩ লাখ ২২ হাজার ৭৯০ টাকার জ্ঞাত আয় বহির্ভূত সম্পদ অর্জন করেছেন। ২০১৭ সালে এই মামলার বিচার কাজ শুরু হয়। নূর আফরোজ বেগম বগুড়া জেলা বিএনপির সাবেক উপদেষ্টা। তিনি বগুড়া থেকে ৮ম জাতীয় সংসদের সংরক্ষিত আসনের সংসদ সদস্য হন।
১৮ বছরের কারাদণ্ড থেকে বাঁচতে ১০ বছর আত্মগোপনে ছিল রেজাউল
কোটি টাকা প্রতারণাসহ ১০ মামলার আসামী বগুড়ার রেজাউল করিম ১৮ বছরের কারাদণ্ড থেকে বাঁচতে ১০ বছর যাবৎ পালিয়ে বেড়াচ্ছিলেন। কারাদণ্ডের ভয়ে প্রথমে মালেশিয়া ও পরে নারায়ণগঞ্জে আত্মগোপন করেছিলেন তিনি । কিন্তু শেষ রক্ষা হয়নি তার। গতকাল রোববার (৮ মে) রাত ১১টার দিকে নারায়ণগঞ্জ জেলার সিদ্ধিরগঞ্জ এলাকা থেকে তাকে গ্রেফতার করে বগুড়ার সদর থানা পুলিশ। আটক রেজাউল করিম (৫০) বগুড়া শহরের বৃন্দাবন পাড়া এলাকার মৃত সদর উদ্দিনের ছেলে। পুলিশ জানায়, আটক রেজাউল বিভিন্ন ব্যক্তির কাছ থেকে প্রায় কোটি টাকা ধার নেন। এরপর ২০১২ সালে সুযোগ বুঝে বগুড়া ছেড়ে মালেশিয়ায় পারি জমান রেজাউল। সেখানে দুই বছর থাকার পর আবারও দেশে ফেরেন। ২০১৪ সালে রেজাউলের বিরুদ্ধে থাকা ১০টি মামলায় মোট ১৮ বছরের কারাদণ্ড দেয় আদালত। এরপর থেকে রেজাউল নারায়ণগঞ্জের সিদ্ধিরগঞ্জে বাড়ি ভাড়া নিয়ে আত্মগোপন করে থাকতেন। সোমবার (৯ মে) দুপুরে বগুড়া সদর থানার উপ-পরিদর্শক জাকির আল আহসান জানান, তথ্য প্রযুক্তির সাহায্যে অবস্থান নিশ্চিত হয়ে রেজাউলকে আটক করা হয়েছে।
বিদ্যুতের প্রি-পেইড মিটার বাতিলের দাবিতে রাস্তায় গ্রাহকরা
বগুড়ার শিবগঞ্জে বিদ্যুতের ডিজিটাল প্রি-পেইড মিটার বাতিলের দাবিতে মানববন্ধন, বিক্ষোভ মিছিল ও বিদ্যুৎ অফিস ঘেরাও কর্মসূচি পালন করেছে গ্রাহকরা। কর্মসূচি শেষে একই দাবিতে মহাস্থান নর্দান ইলেক্ট্রিসিটি সাপ্লাই কোম্পানি লিমিটেড (নেসকো) কার্যালয়ে স্মারক লিপি দিয়েছেন তারা।সোমবার (৯ মে)  বেলা ১১টা থেকে দুপুর ১২টা পর্যন্ত ঘণ্টাব্যাপী উপজেলার মহাস্থান বাজার সড়কে অনুষ্ঠিত উক্ত মানববন্ধনে হাজারো ভুক্তভোগী নারী-পুরুষ অংশ নেয়।মানববন্ধনে আগামী ১ সপ্তাহের মধ্যে মহাস্থানগড় এলাকার সকল প্রি-পেইড মিটার খুলে নিয়ে পূর্বের মিটার প্রতিস্থাপনের দাবি জানিয়ে বক্তারা বলেন, বর্তমান প্রি-পেইড মিটার স্থাপনকারী সংস্থা নর্দান ইলেক্ট্রিসিটি সাপ্লাই কোম্পানি লিমিটেড (নেসকো) সাধারণ বৈদ্যুতিক মিটারের পরিবর্তে প্রি-পেইড মিটারে আসতে চটকদার অফার দিয়ে আমাদের সাথে প্রতারণা করেছে। টাকা শেষ হলে আবার রিচার্জ করলে সেটিও নিমিষেই শেষ। এই মিটার আমরা চাইনা। মানববন্ধন শেষে বিক্ষুব্ধ এলাকাবাসী নেসকো অফিস ঘেরাও করে রাখে এবং মহাস্থান- শিবগঞ্জ আঞ্চলিক সড়ক অবরোধ করেন। একপর্যায়ে পুলিশ এসে তাদের শান্ত করে সড়কে যান চলাচল স্বাভাবিক করে।
ব্যাগে পুলিশ লেখা, ভিতরে ৩৯ বোতল ফেনসিডিল
বগুড়ার আদমদীঘিতে পুলিশ লেখা ট্রাভেল ব্যাগ থেকে ৩৯ বোতল ফেনসিডিল উদ্ধার করেছে পুলিশ। এঘটনায় বাবু (৩০) নামের এক যুবককে গ্রেফতার করা হয়েছে। গ্রেফতারকৃত বাবু রাজশাহী জেলার চারঘাট উপজেলার হদিনগাছি এলাকার বাবর আলীর ছেলে। সোমবার (৮ মে) সকালে গ্রেফতারকৃতের বিরুদ্ধে মাদক আইনে মামলা দিয়ে জেলহাজতে পাঠানো হয়েছে। পুলিশ জানায়, চিলাহাটি থেকে খুলনাগামী সীমান্ত এক্সপ্রেস আন্তঃনগর ট্রেনে যাত্রীবেশে যুবক বাবু ফেনসিডিল বহন করছে। এ সংবাদ পেয়ে গতকাল রোববার (৮ মে) রাত ১২টার দিকে ট্রেনটি সান্তাহার জংশন স্টেশনের ৩ নম্বর প্লাটফর্ম থেকে তাকে গ্রেফতার করা হয়। সান্তাহার রেলওয়ে থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা সাকিউল আজম বলেন, কৌশলে ট্রেনে মাদকবহনকারী যুবকের বিরুদ্ধে মাদক আইনে মামলা দায়ের করে জেলহাজতে পাঠানো হয়েছে।
বগুড়ায় শিয়ালের কামড়ে এক গ্রামের ২০ জন আহত
বগুড়ায় শিয়ালের কামড়ে এক গ্রামের প্রায় ২০ জন ব্যক্তি আহত হয়েছেন। রোববার (৮ মে) সন্ধ্যার পর সারিয়াকান্দি উপজেলার চন্দনবাইশা ইউনিয়নের ঘুঘুমারি গ্রামে শিয়াল কামড়ের এ ঘটনা ঘটে। ঘটনার পর থেকে সারারাত নির্ঘুম রাত কেটেছে ঐ গ্রামের বাসিন্দাদের। শিয়াল আতঙ্কে লাঠি হাতে পাহারা দেয়া হয়েছে রাতভর। গ্রামবাসীরা জানান, সন্ধ্যার পর জঙ্গল থেকে বের হয়ে আসা শিয়াল মানুষদের কামড় দিয়ে পালিয়ে যায়। রাতভর বেশ কয়েকটি বাড়িতে মানুষদের কামড় দিয়েছে শিয়ালটি। ঘুঘুমারি গ্রামের মনির, আফছার, শাকিল, আশাসহ প্রায় ২০ জন নারী-পুরুষ শিয়ালের কামড়ে আহত হয়েছেন। এরপর গ্রামবাসী দলবদ্ধভাবে লাঠিশোঠা নিয়ে শিয়াল ধরার জন্য বিভিন্ন জঙ্গলে তল্লাশি চালায়। সারিয়াকান্দি থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা মিজানুর রহমান বলেন, খবর পেয়ে পুলিশ ঘটনাস্থলে গিয়ে গ্রামবাসীদের শান্ত থাকার আহবান জানিয়েছে। এ বিষয়ে উপজেলা প্রানী সম্পদ কর্মকর্তার সাথে কথা বলে প্রয়োজনীয় পদক্ষেপ নেয়া হবে।
বগুড়ায় রাতের অন্ধকারে এসিড নিক্ষেপ, শিশুসহ ৩ জন দগ্ধ
বগুড়ার গাবতলী উপজেলার সুখানপুকুর ইউনিয়নের কর্মকার পাড়ায় একটি বাড়িতে রাতের অন্ধকারে দুর্বৃত্তরা এসিড নিক্ষেপে করেছে। এসিডে ঘুমন্ত অবস্থায় শিশুসহ ৩ জন দগ্ধ হয়েছে। তাদেরকে উদ্ধার করে রাজধানীর শেখ হাসিনা জাতীয় বার্ন ও প্লাস্টিক সার্জারি ইনস্টিটিউটে নেওয়া হয়েছে। এসিডে দগ্ধরা হলেন সুখানপুকুর ইউনিয়নের কর্মকার পাড়ার দুলাল কর্মকারের স্ত্রী দিপালী রায় (৫০), দুলাল কর্মকারের ছেলের বউ বিনা রায় (২০) এবং তার নাতি তিন মাসের শিশু সূর্য রায়। পুলিশ ও স্থানীয়রা জানান, বৃহস্পতিবার গভীর রাত অনুমানিক তিনটার দিকে দুর্বৃত্তরা ঘরের জানালা দিয়ে এসিড নিক্ষেপ করে। দগ্ধদের চিৎকারে আশপাশের লোকজন ছুটে আসে। তারা দগ্ধ তিনজনকে উদ্ধার করে চিকিৎসার জন্য বগুড়া শহীদ জিয়াউর রহমান মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নিয়ে যায়। সেখান থেকে তাদের রাজধানীর শেখ হাসিনা বার্নে স্থানান্তর করা হয়। এ ব্যাপারে গাবতলীর মডেল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) সিরাজুল ইসলাম বলেন, এ খবর পাওয়ার পর থেকে পুলিশ দুর্বৃত্তদের গ্রেপ্তারে অভিযান শুরু করেছে। এসিড দগ্ধ ও তাদের পরিবারের লোকেরা ঢাকায় চিকিৎসা নিয়ে ব্যস্ত থাকায় মামলা দিতে বিলম্ব করছেন।
ঈদ উদযাপনে গ্রামে এসে খুন যুক্তরাষ্ট্রপ্রবাসী
বগুড়া সদরে এক যুক্তরাষ্ট্রপ্রবাসীকে কুপিয়ে হত্যা করেছে দুর্বৃত্তরা। নিহত প্রবাসীর নাম আব্দুর রাজ্জাক সরকার (৬৭)। গতকাল মঙ্গলবার (৩ মে) ঈদুল ফিতরের দিবাগত রাত দেড়টার দিকে সদর উপজেলার বাঘোপাড়া মহিষাবাতান বন্দরে ঘটনাটি ঘটে। তিনি ওই এলাকার মৃত আব্দুল লতিফ সরকারের ছেলে। হত্যার বিষয় নিশ্চিত করেছেন সদর থানার ইন্সপেক্টর (তদন্ত) জাহিদুল হক। নিহতের ছেলে শোভন সরকার জানান, তার বাবার আমেরিকায় বসবাসের পাশাপাশি বগুড়াতে ব্যবসা আছে। বর্তমানে শহরের ইয়াকুবিয়া মোড় এলাকায় আমরা বসবাস করি। ঈদ উদযাপনের জন্য বাবা গ্রামে এসেছিলেন। তিনি বাংলাদেশি বংশোদ্ভূত যুক্তরাষ্ট্রের নাগরিক। তিনি আরও বলেন, রাতের দিকে মহিষাবাতান বন্দরে বাবা আড্ডা দিচ্ছিলেন। ওই সময় ৬টি মোটরসাইকেলে প্রায় ১৫/১৬ জন দুর্বৃত্ত এসে বাবার ওপরে হামলা চালায় ও কুপিয়ে হত্যা করে। বগুড়া সদর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মো. সেলিম রেজা জানান, হত্যার সঙ্গে জড়িতদের গ্রেফতার করতে পুলিশের তৎপরতা অব্যাহত আছে।
বগুড়ায় ব্যবসায়ীকে গুলি করে হত্যা
বগুড়ায় মায়ের কবর জিয়ারত করে ফেরার পথে এক ব্যবসায়ীকে গুলি করে হত্যা করেছে সন্ত্রাসীরা। ঘটনার পর পুলিশ সেখান থেকে একটি বিদেশি পিস্তল, ও কয়েক রাউন্ড গুলির খোসা উদ্ধার করেছে। মঙ্গলবার (৩ মে)  দিবাগত রাত সাড়ে ১২ টায় জেলার সদর উপজেলার মহিষবাথান এলাকায় এ হত্যাকাণ্ডের ঘটনা ঘটে। নিহত আব্দুর রাজ্জাক সরকার মহিষবাথান গ্রামের মৃত আব্দুল লতিফ সরকারের ছেলে। তিনি আমেরিকার নাগরিকত্ব পেয়ে স্ত্রী সন্তান নিয়ে সেখানেই বসবাস করতেন। এছাড়া গ্রামের বাড়ি ও বগুড়া শহরে তার নিজেস্ব ব্যবসা প্রতিষ্ঠান ও অনেক জায়গা জমি থাকায় বছরের বেশিরভাগ সময়ই তিনি বগুড়ায় বাস করতেন। বগুড়া সদর থানার পুলিশ পরিদর্শক (তদন্ত) জাহিদুল হক জানান, সন্ত্রাসীদের মধ্যে গুলিবিদ্ধ জনি ও আল আমিনকে আটক করা হয়েছে। ঘটনাস্থল থেকে ১টি বিদেশি পিস্তল ও বেশকিছু গুলির খোসা উদ্ধার করা হয়েছে। বর্তমানে ঐ এলাকায় পুলিশি অভিযান অব্যাহত আছে।
মসজিদ কমিটি নিয়ে সংঘর্ষ: ইমাম ও ইউপি সদস্যসহ আহত ১২
বগুড়ার শিবগঞ্জে মসজিদের কমিটি গঠনকে কেন্দ্র করে দুই পক্ষের সংঘর্ষে ইমাম ও ইউপি সদস্যসহ ১২ জন আহত হয়েছেন। এ ঘটনায় ৯ জনকে আটক করেছে পুলিশ। শুক্রবার (২৯ এপ্রিল) জুমার নামাজের সময় উপজেলার আটমুল ইউনিয়নের রামেরকান্দি চককানু শাহী জামে মসজিদে এ ঘটনা ঘটে। এ ঘটনায় ওই এলাকায় থমথমে অবস্থা বিরাজ করছে। স্থানীয়রা জানান, চককানু শাহী মসজিদের ঈমাম ও মুয়াজ্জিন নিয়ে দীর্ঘদিন ধরে মনোয়ার ও ইউপি সদস্য জহুরুল ইসলামের মধ্যে বিরোধ চলে আসছে। এছাড়া মসজিদ পরিচালনার জন্য ম্যানেজিং কমিটি গঠন নিয়ে ওই দুই পক্ষের মাঝে মতবিরোধ চলছিলো। শুক্রবার জুমাতুল বিদার ফরজ নামাজের পর স্থানীয় ইউপি সদস্য জহুরুল ইসলাম মসজিদের কমিটি গঠনের বিষয়ে বক্তব্য রাখতে গেলে মনোয়ারের পক্ষের লোকজন তাতে বাধার সৃষ্টি করে। এ সময় উভয় পক্ষের মাঝে বাকবিতন্ডার একপর্যায়ে মারামারি শুরু হয়। মুহূর্তেই রণক্ষেত্রে পরিনিত হয় মসজিদ। পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণ আনতে ইমাম কথা বললে তাকেও আঘাত করা হয়। এ সময় দেশীয় অস্ত্র, রড ও বাঁশের লাঠি দিয়ে দুপক্ষের সংঘর্ষে ইউপি সদস্য জহুরুল ইসলাম ও ইমাম মাওলানা মাজেদ আলীসহ উভয় পক্ষের ১২ জন আহত হন।
বগুড়ায় ঈদ খরচের টাকা না পেয়ে যুবকের আত্মহত্যা
বগুড়ার শিবগঞ্জে ঈদের কেনা কাটার টাকা না পাওয়ায় অভিমান করে গলায় ফাঁস দিয়ে এক যুবক আত্মহত্যা করেছে। গতকাল বৃহস্পতিবার (২৮ এপ্রিল) রাত ৮টার দিকে শিবগঞ্জ পৌর এলাকার নাগর বন্দর এলাকায় এ ঘটনা ঘটে। নিহত যুবকের নাম আতিক হাসান (২১)। সে পৌর এলাকার লালদহ মহল্লার আব্দুর রাজ্জাকের ছেলে। এলাকাবাসী জানায়, আতিক হাসান দেড় বছর পূর্বে পৌর এলাকার বনতেঘরী গ্রামের মোস্তাফিজুর রহমান দুদু’র মেয়ে মেঘলা আক্তার মোহনাকে প্রেম করে বিয়ে করে। আতিকের আয় ইনকাম না থাকায় বাবা-মা’র সঙ্গে মনোমানিল্য হওয়ায় মাঝে মধ্যেই ঝগড়া বিবাদ লেগেই থাকতো। গত ৬ দিন আগে আতিক তার স্ত্রীকে নিয়ে নাগর বন্দর এলাকায় সাবেক ইউপি সদস্য হারেজ উদ্দিন এর বাসা ভাড়া নিয়ে বসবাস শুরু করে। আসন্ন ঈদের কেনা কাটার জন্য বাবা মার কাছে টাকা চাইলে তারা দিতে অপারগতা প্রকাশ করে। বৃহস্পতিবার রাত ৮টার দিকে টাকা না পাওয়ায় স্বামী-স্ত্রীর মধ্যে ঈদের কেনা কাটাকে কেন্দ্র করে বাক বিতন্ডার এক পর্যায়ে আতিক অভিমান করে গলায় ফাঁস দিয়ে আত্মহত্যা করে। এব্যাপারে শিবগঞ্জ থানার ওসি দীপক কুমার দাস বলেন, পারিবারিক কলোহের কারণে অভিমান করে আতিক আত্মহত্যা করতে পারে বলে ধারনা করা হচ্ছে।
বগুড়ায় গৃহবধূর রহস্য জনক মৃত্যু, স্বামী আটক
বগুড়ার শেরপুরে মিম আক্তার (১৯) নামের এক গৃহবধূর লাশ উদ্ধার করেছে পুলিশ। বুধবার (২৭এপ্রিল) বেলা এগারোটার দিকে উপজেলার গাড়ীদহ ইউনিয়নের রণবীরবালা গ্রাম থেকে ওই গৃহবধূর লাশ উদ্ধার করা হয়। এ ঘটনায় নিহতের স্বামী শাকিল আহম্মেদকে (২৫) গ্রেফতার করা হয়েছে। জানা যায়, নয়মাস আগে উপজেলার রণবীরবালা গ্রামের রবিউল ইসলামে ছেলে শাকিল আহম্মেদের সাথে পাশের কাফুরা পূর্বপাড়া গ্রামের মজনু আকন্দের মেয়ে মিম আক্তারের বিয়ে হয়। কিন্তু বিয়ের পর থেকেই তাদের মধ্যে বনিবনাত হচ্ছিল না। এরইমধ্যে আসন্ন ঈদে নতুন শাড়ি কাপড় কিনে না দেয়াকে কেন্দ্র করে মঙ্গলবার (২৬ এপ্রিল) সন্ধ্যায় স্বামী স্ত্রীর মধ্যে ঝগড়া হয়। পরদিন সকালে শয়নকক্ষে ওই গৃহবধূর লাশ পাওয়া যায়। নিহত মিম আক্তারের বাবা মজনু আকন্দ জানান, তার মেয়েকে শ্বাসরোধ ও লাঠি দিয়ে পিটিয়ে হত্যা করে ঘটনা ভিন্নখাতে প্রবাহিত করতে আত্মহত্যার নাটক সাজিয়েছে মিমের স্বামীর বাড়ির লোকজন। অভিযোগ অস্বীকার করে নিহত গৃহবধূর স্বামী শাকিল আহম্মেদ বলেন, ঈদে নতুন শাড়ি কেনা নিয়ে তাদের মধ্যে ঝগড়া হয়েছিলো রাতে। শেরপুর থানার উপ-পরিদর্শক মোস্তাফিজ এ প্রসঙ্গে বলেন, ওই গৃহবধূর মৃত্যুটি রহস্যজনক।