তাইওয়ান | Ridmik News
তাইওয়ান
তাইওয়ানকে চীনের ৬৩ যুদ্ধবিমানের ঘেরাও
চীনের অন্তত ৬৩ যুদ্ধবিমান ও চারটি যুদ্ধজাহাজ তাইওয়ানের চারপাশ ঘিরে মহড়া দিয়েছে। সোমবার চীন এ মহড়া দেয় বলে জানিয়েছে তাইওয়ানের প্রতিরক্ষা মন্ত্রণালয়। খবর আনাদোলুর।
তাইওয়ান: চীনা বিরোধী যোদ্ধা বাহিনী গড়ে তুলতে এক কোটিপতির উদ্যোগ
গত সেপ্টেম্বর মাসেই তাইওয়ানের রাজধানী তাইপেতে পাকা চুলের আর ভারী ফ্রেমের চশমা পরা প্রযুক্তি ব্যবসা থেকে অবসরপ্রাপ্ত একজন কোটিপতি একটি প্রেস কনফারেন্স ডেকেছিলেন। সেখানে ওই ব্যবসায়ী ঘোষণা দেন যে তিনি দেশে বেসামরিক সেনাবাহিনী গড়ে তুলতে এক বিলিয়ন তাইওয়ান ডলারের তহবিল কাজে লাগাতে যাচ্ছেন।
'তাইওয়ানে এখনই হামলা করবে না চীন'
তাইওয়ান ইস্যুতে চীনের সঙ্গে যুক্তরাষ্ট্রের উত্তেজনা বেড়েই চলেছে। হুঁশিয়ারি ও পাল্টা হুঁশিয়ারিতে সেই উত্তেজনার পারদ বেড়েছে। চীন তাইওয়ানে এখনই হামলা করবে না বলে মন্তব্য করেছেন মার্কিন প্রতিরক্ষামন্ত্রী লয়েড অস্টিন। রোববার (২ অক্টোবর) সংবাদমাধ্যম সিএনএন-এ সম্প্রচারিত একটি সাক্ষাৎকারে মার্কিন প্রতিরক্ষামন্ত্রী লয়েড অস্টিন বলেন, ‘আমি (তাইওয়ানে চীনের) আসন্ন আক্রমণ দেখতে পাচ্ছি না। আমরা যা দেখতে পাচ্ছি তা হলো- চীন (তাইওয়ানের চারপাশে) একটি নতুন স্বাভাবিক অবস্থা প্রতিষ্ঠা করতে এগিয়ে চলেছে। সেখানে তাদের কার্যকলাপ বৃদ্ধি পেয়েছে। আমরা তাদের বিমানকে তাইওয়ান প্রণালীর বেশ কয়েকটি লাইন ক্রসিং করতে দেখেছি। সময়ের সাথে সাথে ওই সংখ্যা বেড়েই চলেছে। তাইওয়ানের আশপাশে চীনের ভূখণ্ড এবং জলসীমায় আমরা চীনের বর্ধিত কার্যকলাপ দেখছি।'
উপার্জনের আশায় বিদেশ গিয়ে ভয়ানক অভিজ্ঞতা জানালেন যুবক
তাইওয়ানের ইয়াং ওয়েইবিন নামের এক যুবক অর্থ উপার্জনের আশায় পাড়ি জমায় কম্বোডিয়ায়। এর আগে কম্বোডিয়ায় টেলিসেল রোলের বিজ্ঞাপনটি দেখে একে লোভনীয় প্রস্তাবই মনে করেছিলেন তাইওয়ানের ইয়াং ওয়েইবিন। এরপর কোনো ভাবনা-চিন্তা না করেই নিয়োগকর্তার সঙ্গে যোগাযোগ করেন তিনি। এক সপ্তাহের মধ্যে তিনি সোজা উড়াল দেন কম্বোডিয়ায়। সম্প্রতি সংবাদ সংস্থা বিবিসিক তিক্ত অভিজ্ঞতার কথা জানিয়েছেন তিনি।
শক্তিশালী ভূমিকম্পে কেঁপে উঠলো তাইওয়ান
তাইওয়ানের পূর্ব উপকূলে ৬ দশমিক ৬ মাত্রার শক্তিশালী ভূমিকম্পে আঘাত হেনেছে। শনিবার (১৭ সেপ্টেম্বর) স্থানীয় রাত সাড়ে ৯টা এ ভূমিকম্পে আঘাত হানে। বার্তা সংস্থা এএফপির এক প্রতিবেদনে এ তথ্য জানা গেছে। ইউএসজিএস জানায়, উপকূলীয় শহর তাইতুংতে স্থানীয় সময় রাত সাড়ে ৯টার দিয়ে ভূমিকম্পটি অনুভূত হয়। এর গভীরতা ছিল ভূপৃষ্টের ১০ কিলোমিটার গভীরে। অবশ্য তাইওয়ানের কেন্দ্রীয় আবহাওয়া ব্যুরোর মতে ভূমিকম্পটি ছিল ৬ দশমিক ৪ মাত্রায়। দুটি টেকটোনিক প্লেটের সংযোগস্থলের কাছে অবস্থিত হওয়ায় তাইওয়ানে প্রায়ই ভূমিকম্পের ঘটনা ঘটে। অবশ্য সাত মাত্রার থেকে বেশি শক্তিশালী ভূমিকম্প না হলে দ্বীপটিতে সুনামির সতর্কতা জারি করা হয় না।
তাইওয়ানকে ১.১ বিলিয়ন ডলারের অস্ত্র দিচ্ছে যুক্তরাষ্ট্র
তাইওয়ানের কাছে ১৬০টি ক্ষেপণাস্ত্রসহ ১১০ কোটি বা ১.১ বিলিয়ন ডলারের অস্ত্র বিক্রির ঘোষণা দিয়েছে যুক্তরাষ্ট্র। দেশটিতে অস্ত্র বিক্রির এ অনুমোদন দিয়েছে যুক্তরাষ্ট্রের পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়। শুক্রবার (২ সেপ্টেম্বর) বিবিসির এক প্রতিবেদনে এই তথ্য জানানো হয়। মার্কিন মন্ত্রণালয়ের এক মুখপাত্র বলেছেন, তাইওয়ানের নিরাপত্তার জন্য এসব অস্ত্র খুব জরুরি। তাইওয়ানের প্রতিরক্ষাব্যবস্থা জোরদারের লক্ষ্যেই ওয়াশিংটনের পক্ষ থেকে এ ঘোষণা এসেছে। তাইওয়ান নিয়ে চীনের সঙ্গে উত্তেজনার মধ্যে এই ঘোষণা দিলো যুক্তরাষ্ট্র। যদিও এ খবরে ক্ষুব্ধ প্রতিক্রিয়া দেখিয়ে চীন বলছে, হয় চুক্তি প্রত্যাহার করো, না হয় মুখোমুখি হও ‘পাল্টা পদক্ষেপের’। পেন্টাগনের ডিফেন্স সিকিউরিটি করপোরেশন অ্যাজেন্সি, এ প্যাকেজের মধ্যে ৬০টি অ্যান্টি-শিপ ক্ষেপণাস্ত্র, ১০০টি এয়ার-টু-এয়ার ক্ষেপণাস্ত্র এবং একটি নজরদারি রাডারের জন্য সহযোগিতামূলক বিষয় রয়েছে।
চীনকে তাইওয়ানের হুঁশিয়ারি!
চলতি মাসের শুরুতে মার্কিন স্পিকার ন্যান্সি পেলোসি ও য়াশিংটনের শীর্ষ কর্মকর্তাদের তাইপে সফর আর সবশেষ তাইওয়ানের আকাশে চীনা ড্রোনের আনাগোনা। সব মিলিয়ে চীন-তাইওয়ান উত্তেজনা দিন দিন বেড়েই চলেছে। এদিকে, তাইওয়ানের ভূখণ্ডে চীন সামরিক হামলা চালালে পাল্টা আক্রমণ করা হবে বলে কঠোর হুঁশিয়ারি উচ্চারণ করেছে তাইওয়ান। নিজস্ব জল ও আকাশসীমার সুরক্ষা নিশ্চিতের অধিকার তাদের আছে বলে জানিয়েছে তাইওয়ানের প্রতিরক্ষা বাহিনী। তাইওয়ানের সঙ্গে যুক্তরাষ্ট্রের কোনো আনুষ্ঠানিক কূটনৈতিক সম্পর্ক নেই। তবে বিদ্যমান চুক্তি অনুযায়ী, দ্বীপটিকে আত্মরক্ষায় সাহায্য করবে যুক্তরাষ্ট্র। গতকাল বুধবার (৩১ আগস্ট) এক সংবাদ সম্মেলনে তাইওয়ানের প্রতিরক্ষা বিভাগের মুখপাত্র বলেন, তাইপের ভূখণ্ডে চীন সামরিক হামলা চালালে পাল্টা আক্রমণ করা হবে।
ফের তাইওয়ানের পাশে চীনের সামরিক মহড়া
যুক্তরাষ্ট্রের সিনেটর তাইপে সফরের জেরে ফের তাইওয়ানের আশপাশে সামরিক মহড়া চালালো চীন। গতকাল শুক্রবার (২৬ আগস্ট) তাইওয়ান প্রণালিতে আকাশ ও সমুদ্রপথে সামরিক মহড়া চালায় চীনা সামরিক বাহিনী। তবে এ মহড়াকে নিজেদের নিয়মিত সামরিক মহড়া বলে জানিয়েছে চীনের প্রতিরক্ষা মন্ত্রণালয়। চীনের কড়া হুঁশিয়ারি সত্ত্বেও ফের তাইওয়ান সফরে গেছেন এক যুক্তরাষ্ট্রসিনেটর। গত বৃহস্পতিবার (২৫ আগস্ট) তিনি যুক্তরাষ্ট্রের সামরিক বাহিনীর একটি বিমানে তাইপে পৌঁছান। এর পরই পাল্টা জবাবে তাইওয়ানের আশপাশে আকাশ ও সমুদ্রপথে ফের সামরিক মহড়া চালিয়েছে চীন। একের পর এক মার্কিন শীর্ষ কর্মকর্তার অঞ্চলটি সফরে উত্তেজনা ক্রমেই বেড়ে চলেছে। মার্কিন সিনেটরের তাইওয়ান সফরের কারণেই এ মহড়া বলে তাইপে দাবি করলেও চীনা প্রতিরক্ষা মন্ত্রণালয় বলছে, এটি নিয়মিত সামরিক মহড়ারই অংশ।
তাইওয়ানের আকাশে ঢুকে পড়েছে চীনের ৫টি যুদ্ধবিমান
এখনও চীন ও তাইওয়ানের মধ্যে উত্তেজনা চলছেই। রোববার (২১ আগস্ট) তাইওয়ানের আকাশসীমায় চীনের অন্তত ৫টি যুদ্ধবিমান অনুপ্রবেশ করেছে বলে দাবি করেছে তাইপে। রোববার বার্তা সংস্থা রয়টার্স এক প্রতিবেদনে এ তথ্য জানা গেছে। এর আগে তাইওয়ানের প্রতিরক্ষা মন্ত্রণালয়ের বরাত দিয়ে তাইওয়ান নিউজ এক প্রতিবেদনে জানিয়েছে, গত শুক্রবার (১৯ আগস্ট) বিকাল ৫টার দিকে চীনের সেনাবাহিনীর ১৭টি বিমান ও পাঁচটি জাহাজের গতিবিধি তারা লক্ষ্য করেছেন। তাইওয়ানের অভিযোগ, গত শুক্রবার চীনের যুদ্ধবিমান তাইওয়ান প্রণালীর মধ্যরেখা লঙ্ঘন করেছে। তার মধ্যে রয়েছে চারটি বোমারু বিমান জেএইচ-৭। দু’টি করে সুখোই-৩০ এবং জে-১১ যুদ্ধবিমান তাইওয়ানের আকাশসীমা লঙ্ঘন করে বলে তাইপে অভিযোগ করেছে। তাইওয়ানের পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয় জানিয়েছে, তারা কমব্যাট এয়ার পেট্রোলস (সিএপি), নৌবাহিনীর জাহাজ এবং বিমান প্রতিরক্ষা ক্ষেপণাস্ত্র ব্যবস্থাকে চীনা কার্যকলাপের উপর নজরদারি করে প্রতিক্রিয়া জানানোর দায়িত্ব দিয়েছে বলে তাইওয়ান নিউজের প্রতিবেদনে বলা হয়েছে।
তাইওয়ানের সমুদ্রসীমায় সামরিক মহড়ার সমাপ্তি ঘোষণা করলো চীন
যুক্তরাষ্ট্রের প্রতিনিধি পরিষদের স্পিকার ন্যান্সি পেলোসির সফরকে কেন্দ্র করে তাইওয়ানের চারপাশে শুরু করা সামরিক মহড়ার সমাপ্তি ঘোষণা করেছে চীন। বুধবার (১০ আগস্ট) দেশটি নজিরবিহীন এ মহড়ার সমাপ্তি ঘোষণা করে। এর আগে, গত সপ্তাহে মহড়াটি শুরু হয়েছিল। আনোদলুর ও দ্য গার্ডিয়ানের প্রতিবেদনে এই তথ্য জানা যায়। পিপলস লিবারেশন আর্মি (পিএলএ) ইস্টার্ন থিয়েটার কমান্ড বলছে, তারা তাইওয়ানের চারপাশে সাম্প্রতিক মহড়ায় বিভিন্ন মিশন সফলভাবে সম্পন্ন করেছে এবং সেনাদের যৌথ যুদ্ধ সক্ষমতা কার্যকরভাবে পরীক্ষা করেছে। কমান্ড আরও জানায়, তাইওয়ান প্রণালীতে এ ধরনের যুদ্ধের প্রস্তুতিমূলক সামরিক মহড়া নিয়মিত চালানো হবে। বেইজিং বলছে, ‘শান্তিপূর্ণ পুনর্মিলনের জন্য চীন সচেতনভাবে কাজ করবে।’ মূলত তাইওয়ানকে মূল ভূখন্ডের সঙ্গে যুক্ত করার ক্ষেত্রে শক্তি প্রয়োগের বিষয় অস্বীকার করে শ্বেত পত্র প্রকাশের কয়েক ঘণ্টা পর সামরিক মহড়া সমাপ্ত ঘোষণা করল চীন।
চীনকে জবাব দিতে সামরিক মহড়া শুরু করলো তাইওয়ান
চীনকে পালটা জবাব দিতে এবার তাইওয়ানও মহড়া শুরু করেছে। মঙ্গলবার (৯ আগস্ট) তাইওয়ানের সামরিক বাহিনী সরাসরি আর্টিলারি মহড়া চালিয়েছে। এ ব্যাপারে তাইওয়ানের তাইওয়ানের অষ্টম সেনা কর্পোরেশনের মুখপাত্র জানান, চীনের বিশাল যুদ্ধ মহড়া প্রতিক্রিয়ায় তাইওয়ানও প্রতিরোধমূলক মহড়া শুরু করেছে। দক্ষিণ তাইওয়ানের পিন্টুংগ নামক এলাকায় মঙ্গলবার ভোর চারটা থেকে এ মহড়া শুরু হয়। তবে ঘণ্টাখানেক পরেই মহড়া শেষ হয়। তাইওয়ান আগামী বৃহস্পতিবার (১১ আগস্ট) আরেকটি সামরিক মহড়া চালাবে বলে জানা গেছে। এ মহড়ায় শত শত সেনা এবং প্রায় ৪০টি হাউইটজার অন্তর্ভুক্ত থাকবে। চীনের আপত্তি সত্ত্বেও তাইওয়ান সফর করেন মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের প্রতিনিধি পরিষদের স্পিকার ন্যান্সি পেলোসি। এ সফরের নিন্দা জানিয়ে বেইজিং এ যাবতকালের সবচেয়ে বড় সামরিক মহড়ার ঘোষণা দেয়। ন্যান্সি পেলোসি তাইওয়ান ত্যাগ করার সঙ্গে সঙ্গেই শুরু হয় চীনের সামরিক বাহিনী মহড়া।
চীনের প্রতিক্রিয়ায় চিন্তিত যুক্তরাষ্ট্র?
তাইওয়ান দ্বীপের চারপাশে চীনের ক্রমবর্ধমান সামরিক পদক্ষেপ ওই অঞ্চলের জন্য উদ্বেগের। তবে এটা নিয়ে যুক্তরাষ্ট্র মোটেও 'চিন্তিত না' বলে জানিয়েছেন প্রেসিডেন্ট জো বাইডেন। সোমবার (৮ আগস্ট) সাংবাদিকদের প্রেসিডেন্ট বাইডেন বলেন, আমি চিন্তিত নই, কিন্তু তারা অনেক দ্রুত এগোচ্ছে এটা নিয়ে উদ্বিগ্ন। বাইডেন আরও বলেন, আমার মনে হয় না তার যা আছে যা করেছে তার চেয়ে বেশি কিছু করবে। মার্কিন প্রতিনিধি পরিষদের স্পিকার ন্যান্সি পেলোসির তাইওয়ান সফর যৌক্তিক ছিল কিনা জানতে চাইলে বাইডেন বলেন, এটি ছিল পেলোসির সিদ্ধান্ত। উল্লেখ্য, বেইজিংয়ের হুঁশিয়ারি উপেক্ষা করে গত ২ আগস্ট তাইওয়ানের রাজধানী তাইপেতে বিশেষ সফরে যান মার্কিন প্রতিনিধি পরিষদের স্পিকার ন্যান্সি পেলোসি। এর জেরে তাইওয়ানের চারপাশে বড় ধরনের সামরিক মহড়া শুরু করে চীন। যুক্তরাষ্ট্রের সঙ্গে কয়েকটি ক্ষেত্রে সহযোগিতাও বাতিল করেছে চীন।
নতুন সামরিক মহড়ার ঘোষণা দিলো চীন
মার্কিন প্রতিনিধি পরিষদের স্পিকার ন্যান্সি পেলোসির তাইওয়ান সফরের প্রতিক্রিয়ায় তাইওয়ান ঘিরে ছয় স্থানে সামরিক মহড়া করে চীন। রোববার (৭ আগস্ট) চার দিনের নজিরবিহীন ওই সামরিক মহড়া শেষ হয়েছে। তাইওয়ান ঘিরে মহড়া শেষ হতেই নতুন সামরিক মহড়ার ঘোষণা দিয়েছে চীন। কোরীয় উপদ্বীপের কাছে ইয়েলো সি বা পীত সাগর এবং লাগোয়া বোহাই সাগরে নতুন এই সামরিক মহড়া শুরুর ঘোষণা দেয় চীন। এসব মহড়ায় তাজা গুলি ব্যবহার করা হবে। চীনের নৌ চলাচল নিরাপত্তা বিষয়ক সংস্থা জানিয়েছেম, পীত সাগরে মহড়া চলবে ১৫ আগস্ট পর্যন্ত। অন্যদিকে, চীনের পূর্বাঞ্চলীয় উপকূলে বোহাই সাগরে ৮ আগস্ট থেকে এক মাস ধরে মহড়া চলবে।
এবার ন্যান্সি পেলোসির ওপর চীনের নিষেধাজ্ঞা জারি
সম্প্রতি মার্কিন স্পিকার ন্যান্সি পেলোসির তাইওয়ান সফরকে কেন্দ্র করে তার ওপর নিষেধাজ্ঞা আরোপ করেছে চীন। শুক্রবার ( ৫ আগস্ট) ব্রিটিশ সংবাদমাধ্যম বিবিসির এক প্রতিবেদনে এ তথ্য জানানো হয়েছে। প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, শুক্রবার (৫ আগস্ট) চীনের পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয় থেকে দেয়া একটি বিবৃতিতে বলা হয়, সম্প্রতি তাইওয়ান সফরের মাধ্যমে ন্যান্সি পেলোসি চীনের অভ্যন্তরীণ বিষয়ে গুরুতরভাবে হস্তক্ষেপ করেছেন । তিনি চীনের সার্বভৌমত্ব ও ভৌগলিক অখণ্ডতাকে নিদারুনভাবে অবমূল্যায়ন করেছেন। পেলোসির সফরের আগেই যুক্তরাষ্ট্রকে হুমকি দিয়ে রেখেছিল চীন। তবে পেলোসি এসব হুমকির মধ্যেই তাইওয়ান সফর করেন। বৃহস্পতিবার ( ৪ জুলাই) পেলোসির সফরের জেরে ২২টি যুদ্ধবিমান তাইওয়ানের আকাশ সীমায় পাঠায় চীন। পাশাপাশি তাইওয়ান প্রণালীতে ক্ষেপণাস্ত্র ছুঁড়েছে বেইজিং। ১৯৪৯ সালে কমিউনিস্টরা ক্ষমতা দখল করার পর তাইওয়ান চীনের মূল ভূখণ্ড থেকে বিচ্ছিন্ন হয়ে যায়। যদিও তাইওয়ানকে বরাবরই নিজেদের একটি প্রদেশ বলে মনে করে থাকে বেইজিং।
চীনকে ‘দুষ্ট প্রতিবেশী’ হিসেবে আখ্যা দিলেন তাইওয়ানের প্রধানমন্ত্রী
সম্প্রতি মার্কিন স্পিকার ন্যান্সি পেলোসির তাইওয়ান সফরকে কেন্দ্র করে তাইওয়ান ঘিরে ধরে ভয়াবহ সামরিক মহড়া শুরু করেছে চীন। চীনের এই সামরিক মহড়ার আওতায় তাইওয়ান ও জাপানের কাছে ক্ষেপণাস্ত্র পড়ার অভিযোগ উঠেছে। এরপর গোটা অঞ্চলে আরও উত্তেজনা দেখা দিয়েছে। জানা গেছে, এরই মধ্যে সামরিক মহড়ার আওতায় কমপক্ষে ৪ টি ক্ষেপণাস্ত্র তাইওয়ানের রাজধানী তাইপের উপর দিয়ে উড়িয়ে সমুদ্রে নিক্ষেপ করেছে চীনা বাহিনী। তবে সেগুলো বায়ুমণ্ডলের উপর দিয়ে উড়ে যাওয়ায় সরাসরি কোনও হুমকি সৃষ্টি করেনি বলে জানিয়েছে তাইওয়ানের প্রতিরক্ষা মন্ত্রণালয়। তবে চীন এখনও এ বিষয়ে কোনও মন্তব্য করেনি। এদিক, তাইওয়ানের প্রধানমন্ত্রী সু সেং-চাং শুক্রবার সাংবাদিকদের বলেন, চীন নির্বিচারে সামরিক মহড়া চালিয়ে বিশ্বের সবচেয়ে ব্যস্ত জলপথ ধ্বংস করে দিচ্ছে। এ সময় তিনি গণপ্রজাতন্ত্রী চীনকে ‘দুষ্ট প্রতিবেশী’ হিসেবে আখ্যা দেন। সু সেং-চাং বলেন, 'একাধিক প্রতিবেশী দেশ ও গোটা বিশ্ব চীনের আচরণের নিন্দা করছে।' তাইওয়ানের প্রেসিডেন্ট সাই ইং-ওয়েন বলেন, তার দেশ সংঘাত উসকে দেবে না, 'শুধু সার্বভৌমত্ব ও জাতীয় নিরাপত্তা জোরালোভাবে রক্ষা করবে।'